মাঝপদ্মায় লঞ্চডুবি নারী-শিশুসহ ২৮ মৃতদেহ উদ্ধার

0
297
Print Friendly, PDF & Email

পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌপথে কার্গোর ধাক্কায় ডুবে যাওয়া লঞ্চ এমভি মোস্তফা থেকে নারী-শিশুসহ ২৮ যাত্রীর মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

রোববার (২২ ফেব্রুয়ারি) বিকেল ৫টা ৪৮ মিনিট পর্যন্ত এ মৃতদেহগুলো উদ্ধার করেছে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল।

উদ্ধার হওয়া যাত্রীদের মধ্যে রয়েছেন- ৭ নারী,  ৩ মেয়ে শিশু, ৩ ছেলে শিশু ও ১৫ জন পুরুষ রয়েছেন। তাৎক্ষণিকভাবে তাদের নাম-পরিচয় জানা যায়নি।

মানিকগঞ্জের সহকারী পুলিশ সুপার মো. শাহীনুর আলম খান বাংলানিউজকে এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

উদ্ধার কাজ তদারকি করতে দুর্ঘটনাস্থলে পৌঁছেছেন নৌ পরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খান। এছাড়াও সেখানে রয়েছেন মানিকগঞ্জ জেলা প্রশাসক (ডিসি) রাশিদা ফেরদৌস, পুলিশ সুপার (এসপি) বিধান ত্রিপুরাসহ প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

কমফোর্ট লাইন ও রাজধানী এক্সপ্রেসের যাত্রীরা ডুবে যাওয়া লঞ্চ মোস্তফায় ছিল।

এদিকে, লঞ্চডুবির ঘটনায় দৌলতদিয়া ও পাটুরিয়া ঘাটে স্ব স্ব জেলা প্রশাসকের উদ্যোগে দুটি নিয়ন্ত্রণ কক্ষ খোলা হয়েছে বলে জানিয়েছেন রাজবাড়ীর জেলা প্রশাসক।

এছাড়া মানিকগঞ্জের শিবালয় ‍উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের উদ্যোগে একটি মেডিকেল সেন্টার খোলা হয়েছে পাটুরিয়া ঘাটে।

এর আগে বেলা পৌনে ১২টার দিকে পাটুরিয়া থেকে দৌলতদিয়া যাওয়ার পথে সারবাহী কার্গোর ধাক্কায় ডুবে যায় লঞ্চটি। এতে প্রায় আড়াইশ যাত্রী ছিলেন। দেড় শতাধিক যাত্রী উদ্ধার হলেও এখনো শতাধিক যাত্রী নিখোঁজ রয়েছেন।

শেয়ার করুন