‘রাম মন্দির নির্মাণের জন্য মুসলিমদের এগিয়ে আসা উচিত’

0
294
Print Friendly, PDF & Email
‘রাম মন্দির নির্মাণের জন্য মুসলিমদের এগিয়ে আসা উচিত’

ভারতের কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ও বিজেপির সিনিয়র নেতা গিরিরাজ সিং বলেছেন, উত্তর প্রদেশের অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণের জন্য মুসলিমদের এগিয়ে আসা উচিত। গতকাল শনিবার বিহারের গয়ায় আয়োজিত সাধু-সন্তদের এক সমাবেশে ভাষণ দেয়ার সময় তিনি এমন মন্তব্য করেন। খবর পার্সটুডের।

গিরিরাজ সিং বলেন, অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণের জন্য মুসলিমদের এগিয়ে আসা উচিত। তার দাবি, ধর্মের ভিত্তিতে ভারত বিভাজন হওয়ার পরে পাকিস্তানে হয় জোর করে হিন্দুদের মুসলিম করা হয়েছে, নয়তো তারা সেখান থেকে পালিয়ে গেছেন। পাকিস্তানে বেছে বেছে মন্দির ধ্বংস করা হয়েছে। পাকিস্তানে হিন্দুদের দুর্দশা সত্ত্বেও ভারতে থাকা মুসলিমদেরকে নিজেদের বুকের মধ্যে রাখা হয়েছে।

রাম মন্দির নির্মাণ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, মুসলিম ভাইদের এ নিয়ে এগিয়ে আসতে হবে। অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণের জন্য যদি তারা এগিয়ে না আসেন তাহলে হিন্দুদের ধৈর্যের বাঁধ ভেঙে যাবে এবং এমনটি হলে তা দেশের জন্য ভালো হবে না।

গিরিরাজ সিং বলেন, ভারতে মুসলিম তিন থেকে ৩৩ শতাংশে পৌঁছেছে। কিন্তু তা সত্ত্বেও হিন্দুদের মন্দির ভারতের স্বাধীনতার ৭২ বছর পরেও অযোধ্যা, মথুরা ও কাশীতে নির্মাণ করা যায়নি। এদেশের দুর্ভাগ্য যে ১০০ কোটি হিন্দু জনসংখ্যা অধ্যুষিত দেশে একটি মন্দির নির্মাণের জন্য নেতাদের এবং আদালতের মুখাপেক্ষী হতে হচ্ছে!

তিনি কার্যত হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেন, এখনও যদি অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণ না হয় তাহলে ১০০ কোটি হিন্দুদের ধৈর্যের বাঁধ ভেঙে গেলে দেশের জন্য তার ফল ভালো হবে না।

উপস্থিত সাধুদের উদ্দেশ্য গিরিরাজ সিং বলেন, এখন ‘ওম শান্তি, ওম শান্তি’ বলার দিন শেষ হয়ে গেছে। এখন ‘ওম ক্রান্তি (বিপ্লব) ওম ক্রান্তি’ বলার সময় এসে গেছে।

বাবরি মসজিদ-রাম জন্মভূমি বিতর্ক মামলা সুপ্রিম কোর্টে বিচারাধীন রয়েছে। আগামী মাসে ওই মামলার শুনানি হওয়ার কথা আছে।

শেয়ার করুন