অর্থমন্ত্রী তো রাবিশ-রুবিশ বলে শেষ করে দেবেন’

0
83
Print Friendly, PDF & Email

অর্থমন্ত্রীর কঠোর সমালোচনা করে আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত বলেছেন, ‘হলমার্ক, ডেসটিনি. এমনকি সোনালী ব্যাংকের পর গতকাল পত্রিকায় দেখলাম বেসিক ব্যাংকের হাজার হাজার কোটি টাকা লোপাট হয়েছে। অব্যাহতভাবে এ সব অর্থ কেলেঙ্কারি হচ্ছে। এতে কেন্দ্রীয় ব্যাংক ও অর্থ মন্ত্রণালয় কী করছে তা আমার বুঝে আসে না। অর্থমন্ত্রীকে কিছু বললেতো রক্ষা নেই। রাবিশ-রুবিশ বলে একেবারে শেষ করে দেবেন।’

রাজধানীর কাকরাইলে ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স মিলনায়তনে শুক্রবার দুপুরে বঙ্গবন্ধু একাডেমি আয়োজিত চলমান রাজনীতি বিষয়ক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

সুরঞ্জিত বলেন, ‘কেন্দ্রীয় ব্যাংক ও অর্থ মন্ত্রণালয়ের কাছে দেশ ও জাতি এমনটি আশা করে না। বেসিক ব্যাংকের এমডি ও চেয়ারম্যানকে জামাই আদরে রাখা হয়েছে। এ সব হোতাদের আজও গ্রেফতার করা হয়নি। আমি মনে করি, বেসিক ব্যাংকের এমডি ও চেয়ারম্যানের ব্যাংক একাউন্ট সিস করে তাদের গ্রেফতার করা প্রয়োজন। তা না করে আপনারা তদন্ত করছেন। এর পর গ্রেফতার করবেন। তদন্ত শেষ হতে হতে এই টাকা কোথায় যাবে, তা আর কেউ খুঁজে পাবে না।’

তিনি বলেন, ‘অর্থ মন্ত্রণালয় ও কেন্দ্রীয় ব্যাংকের এই ব্যর্থতা একেবারেই অমার্জনীয়। মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে ব্যাংকগুলোতে মনিটরিং আরও বৃদ্ধি করতে হবে। বিভিন্ন ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদে অপেশাদার লোক নিয়োগ দেওয়ার কারণে দুর্ণীতি বাড়ছে। চেয়ারম্যানরা সংশ্লিষ্ট বিষয়ে অভিজ্ঞ না থাকায় নিয়ন্ত্রণ করতে ব্যর্থ হচ্ছেন।’

ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক হাজী মো. সেলিমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন- সাম্যবাদী দলের নেতা হারুন চৌধুরী, যুবলীগ নেতা মিনহাজ উদ্দিন, সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক হুমায়ুন কবির মিজি প্রমুখ।

শেয়ার করুন