যৌতুক না পেয়ে মাথা কামিয়ে দেয়া হল গৃহবধূর

0
266
Print Friendly, PDF & Email

গ্রেপ্তার রুবেল হোসেন (৩০) আঁয়াপুর গ্রামের মৃত খলিলুর রহমানের ছেলে।

মঙ্গলবার রাতে মামলা দায়েরের পর ওই ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন মান্দা থানার ওসি আব্দুল্লাহ হেল বাকী।

তিনি বলেন, এ ঘটনায় ভুক্তভোগী ওই নারীর স্বামী রুবেল হোসেনসহ তিনজনের বিরুদ্ধে রাতে মামলা হয়েছে। পরে পুলিশ রুবেলকে গ্রেপ্তার করে।

অন্য আসামিরা হলেন, শাশুড়ি রাহেলা বিবি ও জা বেবি বেগম।

নির্যাতনের শিকার ওই নারী বলেন, “সোমবার দুপুরে রুবেলের সহায়তায় ঘরের ভেতর আটকিয়ে শাশুড়ি রাহেলা ও জা বেবি বেগম মাথা কামিয়ে দিয়েছেন। এ সময় রুবেল বিড়ির (সিগারেট) আগুন দিয়ে শরীরের বিভিন্ন অংশে ছ্যাকা দেন।”

তার বাবা আব্বাস আলী জানান, প্রায় চার বছর আগে রুবেল হোসেনের সঙ্গে তার মেয়ের বিয়ে হয়েছিল।

তিনি অভিযোগ করেন, বিয়ের পর থেকে যৌতুকের দাবিতে তাকে প্রায়ই নির্যাতন করতো রুবেল। মাস খানেক আগে রুবেল রাতে বাড়ির পাশের একটি কলাবাগানে নিয়ে জবাই করে হত্যার চেষ্টাও করে।

ওই সময় এলাকায় সালিশ বৈঠকের মাধ্যমে বিষয়টি নিষ্পত্তি করে নেয়া হয়েছিল।

শেয়ার করুন