২ লাখ ৫০ হাজার কোটি টাকার বাজেট পাস

0
86
Print Friendly, PDF & Email

২০১৪-২০১৫ অর্থবছরে ২ লাখ ৫০ হাজার ৫০৬ কোটি টাকার বাজেট পাস হয়েছে। আজ রবিবার দুপুরে জাতীয় সংসদে বাজেট পাস করা হয়।  একই সাথে ৫২টি মন্ত্রণালয় ও বিভাগে ৩৮২ কোটি ৩৪ লাখ ১২১ টাকার মঞ্জুরি ও বরাদ্দ ও পাস হয়। প্রস্তাবিত বাজেটের ৫২টি মন্ত্রণালয় ও বিভাগের মঞ্জুরি ও বরাদ্দের ওপর ২৪৯টি ছাটাই প্রস্তাব করা হয়। এর মধ্যে ৬টি ছাটাই প্রস্তাবের ওপর আলোচনা হলেও কোনটি গ্রহণ করা হয়নি।

ছাটাই প্রস্তাবের ওপর আলোচনা করেন স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য হাজী মো. সেলিম, রুস্তম আলী ফরাজী, সংসদ সদস্য নুরুল ইসলাম মিলন, শওকত চৌধুরী, মো. নোমান। তবে বিরোধীদলের পূর্ব সমর্থন নিয়ে এ বাজেট পাস হয়।

৫ জুন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত অর্থমন্ত্রী হিসেবে ৮ম বাজেট ও মহাজোট সরকারের দ্বিতীয় মেয়াদের প্রথম বাজেট উত্থাপন করেন। এ বাজেটে সর্বোচ্চ বরাদ্দ রাখা হয়েছে অর্থ বিভাগ (১৮৫ কোটি ৬৬ লাখ ৮ হাজার ২৫৯ টাকা), সর্বনিন্ম রাষ্ট্রপতির কার্যালয় (১ লাখ ৪৫ হাজার ৯শ’ টাকা)।

এর আগে স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে গতকাল সকাল ১০টায় অধিবেশন শুরু হয়। অধিবেশনে চলতি অর্থবছরে দুই লাখ ৫০ হাজার ৫০৬ কোটি টাকার জাতীয় বাজেট পাস হয়। এ সময় প্রধানমন্ত্রী ও সংসদ নেতা শেখ হাসিনা এবং বিরোধী দল জাতীয় পার্টির নেতা রওশন এরশাদ উপস্থিত ছিলেন।

এই বাজেটে বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচি (এডিপি) ধরা হয়েছে ৮০ হাজার ৩১৫ কোটি টাকা। তবে স্বায়ত্তশাসিত সংস্থার নিজস্ব অর্থায়নে এডিপিতে পাঁচ হাজার ৬৮৫ কোটি ৪৮ টাকার কর্মসূচি রয়েছে। সব মিলে ২০১৪-১৫ অর্থবছরের এডিপিতে মোট খরচ দেখানো হচ্ছে ৮৬ হাজার কোটি টাকা।

নতুন বছরে অনুন্নয়ন ব্যয়ের পরিমাণ ধরা হয়েছে এক লাখ ৫৪ হাজার ২৪১ কোটি টাকা।

নির্দিষ্টকরণ বিল পাস: আগামী অর্থবছরের বাজেট ব্যয়ের বাইরে সরকারের বিভিন্ন ধরনের সংযুক্ত দায় মিলিয়ে মোট তিন লাখ ৮২ হাজার ৩৪০ কোটি এক লাখ ২১ হাজার টাকার নির্দিষ্টকরণ বিল জাতীয় সংসদে কণ্ঠভোটে  পাস করা হয়েছে। এর মধ্যে সাংসদদের ভোটে গৃহীত অর্থের পরিমাণ দুই লাখ ৩০ হাজার ৪১৭ কোটি ১০ লাখ ৯৪ হাজার টাকা এবং সংযুক্ত তহবিলের ওপর দায় এক লাখ ৫১ হাজার ৯২২ কোটি ৯০ লাখ ২৭ হাজার টাকা।

সংযুক্ত তহবিলের দায়ের মধ্যে ট্রেজারি বিলের দায় পরিশোধ, হাইকোর্টের বিচারপতি ও মহাহিসাব নিরীক্ষক ও নিয়ন্ত্রককে বেতন ইত্যাদি দায় অন্তর্ভুক্ত রয়েছে বলে জানা যায়। উল্লেখ্য, মোট বাজেট ব্যয়ের মধ্যে বৈদেশিক অনুদান রয়েছে। সেই অনুদান বাদ দিয়ে রাষ্ট্রপতির কাছ থেকে নির্দিষ্টকরণ অর্থ মঞ্জুরের জন্য সংসদে পাস করা হয়েছে।

শেয়ার করুন