নওগাঁর মান্দায় বাল্য বিবাহ থেকে রক্ষা পেল ৮ম শ্রেনীর ছাত্রী মিতু৷

0
187
Print Friendly, PDF & Email

নওগাঁ প্রতিনিধি: নওগাঁ জেলার মান্দা উপজেলার সাংবাদিক ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার হস্তক্ষেপে বাল্য বিয়ের হাত থেকে রক্ষাপেল ৮ম শ্রেণী পড়ুয়া মিতু নামের এক মেধাবী মাদ্রাসা ছাত্রী৷ প্রত্যক্ষদশী ও সচেতন এলাকাবাসী বাল্য বিবাহের ঘটনাটি মান্দা রিপোটার্স ইউনিটির সাংবাদিকদের অবহিত করলে সাংবাদিকরা স্থ্নীয় ইউপি চেয়ারম্যান, ইউপি সদস্যের সহযোগীতায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার হস্তক্ষেপে এই বাল্য বিবাহ বন্ধ হয় জানাগেছে একই ইউনিয়নের পাশ্ববর্তী মদনচক গ্রামের জনৈক ওসমান আলীর ছেলে এক সন্তানের জনক মো. মজিদুল ইসলাম (৩৫) আবার বিয়ে করার জন্য যান জামদই পচাপাড়া গ্রামে৷ জনৈক রবিউলের জামদই গতিউল্লা মাদ্রাসার ৮ম শ্রেণী পড়ুয়া মেয়ে মিতু (১৪) এর সাথে গত শুক্রুবার বিয়ের দিন ধায্য করলে তাঁর স্ত্রী মোছা: মিনা বিবি (২৬) এবং তাঁর ছেলে তুফান (৭) বিয়ের আসরে উপস্থিত হয়ে প্রতিবাদ শুরু করে৷ এসময় মান্দা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ঘটনা স্থলে উপস্থিত না হয়ে মোবাইল ফোনের মাধ্যমে স্থানীয় চৌকিদার ইয়াছিন আলীকে দিয়ে বিয়ে বন্ধ করলেন৷#

শেয়ার করুন