ঢাকাই সিনেমায় কলকাতার নুসরাত

0
53
Print Friendly, PDF & Email

প্রথমবারের মতো ঢাকাই সিনেমাতে অভিনয় করবেন টালিগঞ্জের অভিনেত্রী নুসরাত জাহান। পি এ কাজল পরিচালিত ‘ঢাকার ছেলে কলকাতার মেয়ে’ সিনেমায় শাকিবের বিপরীতে অভিনয় করবেন তিনি।

পি এ কাজল গ্লিটজকে বলেন, “নুসরাতের সঙ্গে প্রাথমিক আলোচনা শেষ। তিনি সিনেমায় অভিনয়ের ব্যাপারে সম্মতি জানিয়েছেন। এখন অন্য কিছু না ঘটলে নুসরাতই থাকছেন প্রধান নায়িকার চরিত্রে।”

কাজল জানান, ঈদুল ফিতরের পর শুরু হবে এ সিনেমার শুটিং।

সিনেমাতে দেখা যাবে, ছোটবেলার বন্ধু নুসরাত ও শাকিবের মধ্যে দারুণ ভাব। তারা একে অপরকে না দেখে থাকতে পারেন না। একদিন নুসরাত সপরিবারে ভারতে চলে যায়। শাকিব কলকাতায় গেলে হঠাৎ দেখা হয়ে যায় ছেলেবেলার বন্ধুর সঙ্গে।

শাকিব ও নুসরাত অভিনীত চরিত্রগুলোর নাম কী হবে তা এখনও চূড়ান্ত হয়নি। সিনেমাতে গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে থাকছেন প্রবীর মিত্র, নাসিমা খান, সুব্রত ও কলকাতার দীপঙ্কর দে।
মডেলিং থেকে চলচ্চিত্রে আসা নুসরাতের প্রথম সিনেমা ‘শত্রু’। সিনেমাটি ২০১০ সালে মুক্তি পায়। সিনেমাতে তার নায়ক ছিলেন। এরপর দেবের বিপরীতে ‘খোকা ৪২০’ এবং অঙ্কুশ হাজরার বিপরীতে ‘খিলাড়ি’ নামে দুটি সিনেমা মুক্তি পেয়েছে।

পি এ কাজল ‘মায়াময়’ নামে একটি রোমান্টিক সিনেমা নির্মাণ করছেন। সিনেমাতে প্রধান চরিত্রে থাকছেন সায়মন সাদিক এবং নবাগত বিদিশা। ‘গেরিলা’র পর আবার এ সিনেমাতে নেতিবাচক চরিত্রে দেখা যেতে পারে শতাব্দী ওয়াদুদকে।

পি এ কাজল নির্মিত ‘গোধূলী’ সিনেমাটি ১৯৯১ সালে স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র শাখায় জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পায়। এরপর তিনি ‘সাব্বাস বাঙালি’, ‘ভণ্ড ওঝা’, ‘গণ দুশমন’সহ ৩০টি সিনেমা পরিচালনা করেছেন। তার নির্মিত সর্বশেষ সিনেমা ‘ভালোবাসা আজকাল’ ২০১৩ সালে মুক্তি পায়।

শেয়ার করুন