উপজেলা নির্বাচন পূর্ববর্তী মিথ্যা মামলায় কুষ্টিয়ার খোকসা বিএনপির সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক ও পৌরসভার মেয়রসহ ১৯ দলীয় জোটের ১২ নেতাকে জেল হাজতে প্রেরণ

0
171
Print Friendly, PDF & Email

আশরাফুল ইসলাম অনিক , কুষ্টিয়া \\
কুষ্টিয়ার খোকসা বিএনপির সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক পৌরসভার মেয়র, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান ও দু’জন ইউপি চেয়ারম্যানসহ ১২ জন বিএনপি নেতাকর্মীকে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে আদালত৷ সোমবার সন্ধা্যায় এ আদেশ প্রদান করা হয়৷ উপজেলা নির্বাচন পূর্ববর্তী ২ গ্রম্নপের সংঘর্ষ পরবর্তী মামলায় জামিন শুনানির জন্য নেতাকর্মী নিয়ে আদালতে হাজির হলে কুষ্টিয়ার নিম্ন আদালতের বিজ্ঞ বিচারক সাজ্জাদুর রহমানের দেয়া রায়ের পর সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় ৪ জন প্রতিনিধিসহ ১২ জন ১৯ দলীয় জোটের নেতাকর্মীকে কারাগারে প্রেরণ করা হয়৷ এসময় উপস্থিত বিএনপি নেতাকর্মীরা সরকার ও এই রায়ের বিরম্নদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়ে বিভিন্ন সস্নোগান দেয়৷
১২ জন আসামীদের মধ্যে রয়েছেন উপজেলা বিএনপির সভাপতি সৈয়দ আমজাদ হোসেন, সাধারণ সম্পাদক খোকসা কলেজের অধ্যক্ষ আনিসুজ্জামান স্বপন, পৌর বিএনপির সভাপতি আলাউদ্দিন খান, খোকসা পৌরসভার মেয়র আনোয়ার আহমেদ তাতারী, থানা জামায়াতের আমির ও নবনির্বাচিত উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আবু বক্কর সিদ্দিক, শোমসপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মনিরম্নজ্জমান কাজল, শিমুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মমিনুর রহমান মমিন, কামরম্নজ্জামান শরীফ, যুবদল নেতা নাফিস আহমেদ রাজু, খোকসা থানা ছাত্রদলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক শফিকুল ইসলাম শফিক, হাজী লিয়াকত হুসাইন খান, অদ্যাপক আব্দুলস্নাহ৷
উলেস্নখ্য, উপজেলা নির্বাচন পূর্ববর্তী ১১ ফেব্রুয়ারী সন্ধ্যায় খোকসার শোমসপুর বাজারে বিএনপি নেতাকর্মীদের উপর আওয়ামীলীগ অতর্কিত হামলা চালায় এ সময় ২ পৰের মধ্যে ব্যাপক সংঘর্ষ হয়৷ এরপর ঘটনার ১ সপ্তাহ পর ১৭ ফেব্রম্নয়ারী খোকসা বিএনপির সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক পৌরসভার মেয়র, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান ও দু’জন ইউপি চেয়ারম্যানসহ ১৯ দলীয় জোটের ৯০ জন নেতাকর্মীর বিরম্নদ্ধে ১৯৭৪ সালের বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা হয়৷ এরপর ২৪ ফেব্রুয়ারী উচ্চ আদালত থেকে ৬ সপ্তাহের জামিন নেয় ৯০ জন নেতাকর্মী৷ গতকাল সোমবার কুষ্টিয়ার নিম্ন আদালতে জামিন শুনানির জন্য হাজির হলে আদালত নেতাকর্মীদের জেল হাজতে প্রেরণ করে৷ এদিকে নেতাকর্মীদের আটকের বিষয়ে আদালতে উপস্থিত বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির ত্রাণ ও পুণর্বাসন বিষয়ক সম্পাদক জেলা ১৮ দলীয় জোটের আহবাক জেলা বিএনপির সভাপতি সাবেক এমপি সৈয়দ মেহেদী আহমেদ রম্নমী জানান, সম্পুর্ন একটি মিথ্যা মামলায় নেতাকর্মীদের জেলা হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে৷

জেলা বিএনপির নিন্দা 

খোকসা থানা বিএনপির সভাপতি সৈয়দ আমজাদ হোসেন, সাধারণ সম্পাদক খোকসা কলেজের অধ্যক্ষ আনিসুজ্জামান স্বপন, পৌর বিএনপির সভাপতি আলাউদ্দিন খান, খোকসা পৌরসভার মেয়র আনোয়ার আহমেদ খান তাতারী, নবনির্বাচিত উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আবু বক্কর সিদ্দিক, শোমসপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মনিরম্নজ্জমান কাজল, শিমুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মমিনুর রহমানসহ ১৯ দলীয় জোটের ১২ নেতাকর্মীকে জেল হাজতে প্রেরণের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে কুষ্টিয়া জেলা বিএনপি৷ এক বার্তায় বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির ত্রাণ ও পুণর্বাসন বিষয়ক সম্পাদক জেলা ১৮ দলীয় জোটের আহবাক জেলা বিএনপির সভাপতি সাবেক এমপি সৈয়দ মেহেদী আহমেদ রম্নমী ও বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির সহ মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক সম্পাদক জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক সাবেক এমপি অধ্যৰ সোহরাব উদ্দিন বলেন, বর্তমান অবৈধ সরকার একতরফা প্রহসনের নির্বাচন দিয়ে ৰমতায় এসে ১৯ দলীয় নেতাকর্মীদেও উপর জুলুম নির্যাতন চালাচ্ছে৷ এরই অংশ হিসেবে খোকসার বিএনপির নেতাকর্মী ও বিএনপি জামায়াত সমর্থিত জনপ্রিয় জনপ্রতিনিধিদের জেল হাজতে প্রেরণ করেছে৷ আমরা এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানায় সেই সাথে তাদের নিঃস্বার্থ মুক্তি দাবী করছি৷

শেয়ার করুন