অভিমানী প্রেমিকার গায়ে আগুন

0
154
Print Friendly, PDF & Email

প্রেমিকের সঙ্গে অভিমান করে প্রেমিকা স্মৃতিনাথ (২৮) নিজের গায়ে নিজেই আগুন দিয়েছেন।

শুক্রবার সকালে প্রেমিক প্রশান্ত হাওলাদারের অফিসে গেলে তিনি তাকে উপেক্ষা করলে তিনি এ ঘটনা ঘটান।

মেয়ে স্মৃতিনাথ (২৮), বাবা প্রশান্ত নাথ। তার গ্রামের বাড়ি লেবুতলা যশোর সদর, যশোর। তিনি ১ম লেন, মালিবাগের লুৎফর সাহেবের বাসায় সাবলেট থাকেন।

মেয়েটি জানায়, তিনি নিজে সাউদার্ন অটো মোবাইলস এর জুনিয়র অফিসার। যশোর থেকে ১৯৯৮ সালে তিনি বাংলায় মাস্টার্স পাশ করেন। গত ৭ বছর ধরে প্রশান্ত হাওলাদার নামের এক ছেলের সাথে তার সম্পর্ক চলে। ছেলেটি চার্টার একাউন্ট্যান্সি (সিএ) করে এয়ারটেল কোম্পানিতে চাকরি করে। চাকরি পাওয়ার পর ছেলেটি তাকে কোনো ধরনের পাত্তা না দিলে শনিবার তিনি ওই ছেলের অফিসে যান। কিন্তু ছেলেটি তাকে উপক্ষো করলে সে নিজে নিজের গায়ে আগুন দেয়। পরে এক সিএনজিতে ওই ছেলে তাকে তুলে দেয়। সিএনজি চালক তাকে ঢামেকে নিয়ে বার্ন ইউনিটে ভর্তি করে। এদিকে ওই ছেলে মেয়েটির ছোট ভাই দেবপ্রতনাথকে খবর দিলে তিনি তার বন্ধুকে নিয়ে ঢামেকে আসেন।

বার্ন ইউনিটের চিকিৎসক ডা. এনায়েত কবির জানান, মেয়ে আমাদের জানায় প্রেমঘটিত কারণে তিনি নিজের গায়ে নিজেই আগুন দিয়েছেন। আগুনে মেয়ের শরীরের নিচের অংশ ঝলসে গেলেও তিনি এখন আশঙ্কামুক্ত।

শেয়ার করুন