বিএনপি-জামায়াতিরা উপজেলা নির্বাচনকে বিতর্কিত করার অপচেষ্টা চালাচ্ছে -আওয়ামী লীগ

0
69
Print Friendly, PDF & Email

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেছেন উপজেলা নির্বাচন নিয়ে বিএনপি মিথ্যাচার করছে। জাতীয় নির্বাচনের পর পর পাঁচ দফায় সুষ্ঠুভাবে স্থানীয় নির্বাচন সম্পন্ন করা সরকারের সফলতা। বিএনপি-জামায়াতিরা এ নির্বাচনকে বিতর্কিত করার অপচেষ্টা চালাচ্ছে। তিনি বলেন, স্থানীয় সরকার শক্তিশালী না হলে সরকার শক্তিশালী হয় না। এ নির্বাচন অবাধ ও সুষ্ঠু করার লক্ষ্যে নির্বাচন কমিশন যথাযথ ব্যবস্থা নিয়েছে। সরকারও তাদের সহযোগিতা করেছে। নির্বাচন কমিশনার সাংবিধানিক পদ বহন করলেও তিনি রাষ্ট্রবিচ্ছিন্ন কেউ নন। তিনি যে বক্তব্য দিয়েছেন তা শুধু তার নয়, সারা দেশবাসীর বক্তব্য। গতকাল পঞ্চম ও শেষ দফা উপজেলা নির্বাচন শেষে দলের ধানমন্ডিস্থ আওয়ামী লীগ সভানেত্রীর রাজনৈতিক কার্যালয়ে আয়োজিত এক প্রেস ব্রিফিংয়ে তিনি এসব কথা বলেন। নানক বলেন, নির্বাচনে সহিংসতার মাধ্যমে বিএনপি নৈরাজ্য সৃষ্টির অপচেষ্টা করছে যা একটি রাজনৈতিক দল ও নেতা কর্মীদের কাছে অপ্রত্যাশিত। তিনি বলেন, এর আগেও বিভিন্ন স্থানীয় সরকার নির্বাচন নিয়ে তারা মিথ্যাচার করেছিল। নির্বাচনের আগে বিএনপি ফন্দি করে আর জিতলেই মুখে কুলুপ আঁটে। তাদের এই মিথ্যাচার দুরভিসন্ধিমূলক। নানক বলেন, লক্ষ্মীপুর নির্বাচনে যুবলীগ নেতাকে হত্যা করা হয়েছে। ভোটের বাক্স পুড়িয়ে দেয়া হয়েছে। নির্বাচন কমিশনের নিরপেক্ষতা নিয়ে সন্দেহের অবকাশ নেই। নির্বাচন কমিশন যে কয়টি কেন্দ্রে ভোট স্থগিত করেছে আমরা তার বিরোধিতা করিনি। স্বাগত জানিয়েছি। আগামীতে নির্বাচন কমিশনকে আরও শক্তিশালী করতে সরকার কাজ করবে। নির্বাচনে সহিংসতা ও ব্যালটবাক্স ছিনতাইয়ের অভিযোগ প্রসঙ্গে জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেন, বিএনপি-জামায়াতিরা এ নির্বাচন বিতর্ক করার অপচেষ্টা চালাচ্ছে। অতীতে এ নির্বাচন কমিশন সকল নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করেছে। তাই নির্বাচন কমিশন নিয়ে প্রশ্ন তোলার অবকাশ নেই। নির্বাচন কমিশন যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়ার পরও বিএনপি-জামায়াতের সহিংস মনোভাবের কারণে বিভিন্ন জায়গায় অরাজকতা হয়েছে। স্থানীয় সরকার নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ করতে সরকার সফল হয়েছে বলে দাবি করেছেন তিনি। সংবাদ সম্মেলনে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আহমেদ হোসেন, দপ্তর সম্পাদক আবদুস সোবহান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

শেয়ার করুন