বাঁচতে পারলেন না সেই গুলিবিদ্ধ কনস্টেবল

0
69
Print Friendly, PDF & Email

বাঁচতে পারলেন না সেই কনস্টেবল। রাঙামাটির বাঘাইহাট পুলিশ ক্যাম্পে তারই সহকর্মীর গুলিতে আহত আনোয়ার হোসেন (২০) চট্টগ্রাম সামরিক হাসপাতালে মারা গেছেন।

বুধবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে বাঘাইছড়ি উপজেলার ওই পুলিশ ক্যাম্পে কথা কাটাকাটির জেরে গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটে। পুলিশ সুপার আমেনা বেগম জানান, ক্যাম্পে গুলিবিদ্ধ হওয়ার পর কনস্টেবল আনোয়ার হোসেনকে (২০) প্রথমে দিঘীনালা সেনা ক্যাম্প হাসপাতালে এবং পরে সেখান থেকে হেলিকপ্টারে চট্টগ্রাম সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে পাঠানো হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

ঘটনার জন্য দায়ী কনস্টেবল মোস্তাফিজকে (২৮) বাঘাইহাট পুলিশ ক্যাম্পে আটক রাখা হয়েছে।

পুলিশ জানায়, গুলিবিদ্ধ হওয়া পর জরুরি চিকিৎসার জন্য হেলিকপ্টারে করে তাকে চট্টগ্রাম সামরিক হাসপাতালে পাঠানো হয়। সেখানকার এক পুলিশ সদস্য জানান, কথাকাটাকাটির এক পর্যায়ে উভয়েই উত্তেজিত হওয়ার পর গুলি বর্ষণের এই ঘটনা ঘটে।

সাজেক থানার ওসি আজিজুর রহমান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, আনোয়ার নামের এক পুলিশ সদস্য তাঁর সহকর্মী মোস্তাফিজের গুলিতে গুরুতর আহত হন। থানার বাঘাইহাত পুলিশ ক্যাম্পে সকাল ১০টার দিকে এ দু:খজনক ঘটনা ঘটে। আহত পুলিশ সদস্যের পেটে তিনটি গুলি লেগেছে।

বাঘাইহাত ক্যাম্পের পুলিশ সদস্যরা বলছেন, মোস্তাফিজ ছিলেন ক্যাম্পের মেস ম্যানেজার। আনোয়ারের সঙ্গে মেসের অর্থ নিয়ে তাঁর বাকবিতণ্ডা হয়। একপর্যায়ে মোস্তাফিজ আনোয়ারকে লক্ষ্য করে রাইফেল দিয়ে গুলি ছোঁড়েন।

শেয়ার করুন