মেয়াদ পূর্ণের আগেও সমঝোতায় রাজি আওয়ামী লীগ

0
50
Print Friendly, PDF & Email

দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মেয়াদ পূর্ণ হওয়ার আগেও বিরোধী দলের সঙ্গে আওয়ামী লীগ সমঝোতায় যেতে রাজি আছে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশান সম্পাদক এবং বন ও পরিবেশমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। তবে এ জন্যে বিরোধী দলকে অবশ্যই সন্ত্রাস, নাশকতা বন্ধ করতে হবে বলেও জানান তিনি।

সোমবার দুপুরে বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ের দলীয় কার্যালয়েন সামনে ২২টি সংগঠনের সমন্বয়ে সম্মিলিত আওয়ামী সমর্থক জোটের ব্যানারে আয়োজিত হরতাল ও অবরোধবিরোধী এক মানববন্ধনে অংশ নিয়ে তিনি এ সব কথা জানান।

হাছান মাদমুদ বলেন, “শেখ হাসিনার অধীনে দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হয়েছে। ১৮ দলের সব প্রতিবন্ধকতা উপেক্ষা করে জনগণ স্বত্বঃস্ফূর্তভাবে জনগণ ভোটাধিকার প্রয়োগ করে নির্বাচনকে গ্রহণযোগ্য করেছে।”

এসময় ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও আইন প্রতিমন্ত্রী কামরুল ইসলাম অভিযোগ করেন বিরোধী দলের সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের কারণে ভোটকেন্দ্রে ভোটার উপস্থিতি কম ছিল।

তিনি বলেন, “তবে এ নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে। কোনো কারচুপি হয়নি। নির্বাচন কমিশনও কারচুপি করেনি। সরকারও কোনো হস্তক্ষেপ করেনি।”

কামরুল ইসলাম বলেন, “এই নির্বাচনে বিজয়ী সরকারের মূল কাজ হবে সন্ত্রাস, নাশকতা, জঙ্গিবাদ র্নিমূল করা। জনগণের জানমাল রক্ষা ও দেশে শান্তি, স্থিতিশীলতা বজায় রাখা।”

তবে বিএনপি জামায়াতের সঙ্গ ছেড়ে নাশকতা পরিহার করে সমঝোতা করতে ইচ্ছুক হলে খুব শিগগির নতুন নির্বাচন দেয়া যেতে পারে বলেও জানান তিনি।

ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক আব্দুল হক সবুজের সভাপতিত্বে মানবন্ধনে অন্যান্যের মধ্যে আরো বক্তব্য দেন ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া, সাংগঠনিক সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ প্রমুখ।

শেয়ার করুন