কী আছে বাংলাদেশের ভাগ্যে?

0
79
Print Friendly, PDF & Email

কাল বাদে পরশু বসছে দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচন। বদলে যাবে রাজনীতির ভাগ্য। কিন্তু তার আগে মাত্র একটি রাত পরে আগামীকাল বাংলাদেশকে বসতে হবে ভাগ্য ধরে রাখার এক কঠিন বসচায়।

কি হবে আগামীকাল? শ্রীলঙ্কার রাজধানী কলম্বোতে তা হয়তো জানা যাবে। কিন্তু যা জানা যাবে তাতে কি বাংলাদেশ ক্রিকেটের ভাগ্য রক্ষিত হবেন এ এখন কোটি টাকার প্রশ্ন, শত সাধনার ধন।

যে রাজনীতি দেশের ভাগ্য বদলাতে অঙ্গিকারাবদ্ধ সেই রাজনীতির অস্থিরতার বলি হবে কি দেশের ক্রিকেট অঙ্গন? কলম্বোতে এশিয়ান কিক্রেট কাউন্সিল আগামীকাল জানিয়ে দেবে সে উত্তর। রাজনৈতিক সহিংসতার কারণে বাংলাদেশে খেলতে আসতে ভয় পাচ্ছেন পাকিস্তানের ক্রিকেটাররা। কিন্তু তারা না এলে বাংলাদেশের মাঠে গড়াবে না এশিয়া কাপ।

আগামী ফেব্রুয়ারিতে এশিয়া কাপের উত্তেজনাপূর্ণ আসর বসার কথা বাংলাদেশে। অনেক প্রস্তুতিও সম্পন্ন করে রেখেছে ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। কিন্তু পেয়েও হারানোর মতো হতে পারে বাংলাদেশ ক্রিকেটের ভাগ্য। এশিয়া কাপের ভেন্যু বদলেও যেতে পারে। এমন শঙ্কা নিয়ে কলম্বোর দিকে তাকিয়ে আছে দেশের ক্রিকেট প্রেমীরা।

আগামীকালের ওই সভাতে যোগ দেবেন এশিয়া কাপে অংশ নিতে যাওয়া দলগুলোর শীর্ষ ব্যক্তিরা।

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন বর্তমানে ব্যক্তিগত কাজে লন্ডনে অবস্থান করছেন। সেখান থেকেই কলম্বোতে পৌঁছবেন তিনি।

এ ছাড়া বিসিবির ভারপ্রাপ্ত প্রধান নির্বাহী নিজাম উদ্দিন সুজন সভায় যোগ দিতে গতকাল শুক্রবার বিকেলে ঢাকা ছেড়েছেন। দেশের রাজনৈতিক অস্থিরতার কারণে বাংলাদেশ সফর নিয়ে উদ্বিগ্ন অনেক দল।

পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড থেকে বাংলাদেশের রাজনৈতিক পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করায় কিছুটা চাপের মুখে আছে এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিল (এসিসি)।

পাকিস্তান যদি বাংলাদেশে আসার ব্যাপারে ভেটো দেয় তবে সৃষ্টি হতে পারে ভাগ্য হরণের গল্প। এশিয়া কাপ সরে যাবে অন্যদেশে। আর এর প্রভাব পড়বে টি-২০ বিশ্বকাপেও। তখন আইসিসিরও কিছু করার থাকবে না হয়তো।

তবে বাংলাদেশের জন্য আশার বাণী হচ্ছে, এশিয়া কাপের আগে শ্রীলঙ্কা বাংলাদেশ সফরে আসছে। শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট বোর্ড (এসএলসি) বাংলাদেশ সফর নিয়ে ইতিবাচক মনোভাব প্রকাশ করেছে। বিসিবিকে তারা পূর্ণাঙ্গ নিশ্চয়তাও দিয়েছে।

এরই মধ্যে এসিসি ও আইসিসির কাছে বাংলাদেশের নিরাপত্তা পরিকল্পনা পাঠিয়ে দিয়েছে বিসিবি। তবে এসএলসি বাংলাদেশের আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতির ওপর কড়া নজর রাখছে।

সে যা হোক, বাংলাদেশের চোখে এখন এশিয়া কাপ। আয়োজকের মর্যাদা ধরে রাখাটাই বড় চ্যালেঞ্জ। তবে বাংলাদেশ প্রচ- আশাবাদী এ দেশেই হবে এবারের এশিয়া কাপ।

শেয়ার করুন