মেয়ে ৪৮ আর ছেলে ২৪ তাই নির্যাতন

0
88
Print Friendly, PDF & Email

মেয়ের বয়স ৪৮ বছর আর ছেলের বয়স মাত্র ২৪। এ বিস্তার বয়সের ফারাক পেরিয়ে দুইজনে বিয়ে করেছিলেন। অসম বিয়ে করায় স্বামী-স্ত্রীকে বেঁধে রেখে নির্যাতন করেছে স্থানীয়রা। রোববার সকালে এ অমানবিক ঘটনাটি ঘটানো হয় নগরীর ভাটাপাড়া রেল লাইনের পাশের মহল্লায়। পরে খবর পেয়ে দুপুরের দিকে পুলিশ বর রুবেল হোসেন (২৪) ও কনে নিলুফা বেগমকে (৪৮) উদ্ধার করে। এ সময় তাদের গলায় জুতার মালা ঝুলিয়ে দেওয়া হয়।

স্থানীয়রা জানান, তিন দিন আগে প্রেমের টানে তারা ঘর ছাড়েন। রোববার সকাল ৯টার দিকে তারা বাড়ি ফিরে এসে বিয়ে করেছে বলে জানান। এতে ক্ষুদ্ধ হয়ে রুবেলের বাবা মুনসুর আলী বিষয়টি স্থানীয় কাউন্সিলরকে জানান। পরে স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর নুরুজ্জামানের নির্দেশে স্থানীয় কয়েক ব্যক্তি গলায় জুতার মালা দিয়ে তাদের বেঁধে রাখে। খবর পেয়ে পুলিশ দুপুর ২টার দিকে ঘটনাস্থলে গেলে তাদের ছেড়ে দেওয়া হয়।

নির্যাতিতা নিলুফা বেগম বলেন, ১৫ দিন হলো আগের স্বামী ফজলুর রহমানের সঙ্গে তার তালাক হয়। তিনদিন আগে রুবেলকে বিয়ে করেন তিনি। সকালে স্বামী রুবেলের সঙ্গে তার বাড়িতে গেলে রুবেলের বাবার নির্দেশে স্থানীয়রা তাদের বেঁধে গলায় জুতার মালা দেয় এবং মারপিট করে।

এ বিষয়ে যোগাযোগ করা হলে নগরীর রাজপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এবিএম রেজাউল ইসলাম জানান, এ বিষয়ে থানায় কোনো অভিযোগ আসেনি। অভিযোগ পেলে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শেয়ার করুন