প্রধানমন্ত্রী-বিরোধী নেত্রীর সাক্ষাৎ চাইবেন ৬ বিশিষ্ট নাগরিক

0
42
Print Friendly, PDF & Email

রাষ্ট্রপতির পর এবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বিরোধী নেত্রী খালেদা জিয়ার সঙ্গে বৈঠকে বসার পরিকল্পনা করছেন দেশের ৬ বিশিষ্ট নাগরিক। এ উদ্দেশে আজ বা কাল প্রধানমন্ত্রী ও বিরোধী নেত্রীর কাছে সাক্ষাতের জন্য সময় চাইবেন তারা। রাষ্ট্রপতির সঙ্গে বৈঠকের পর নানা মহলে একজন সদস্যের বিষয়ে সরাসরি রাজনৈতিক সংশ্লিষ্টতা ওঠায় প্রধানমন্ত্রী ও বিরোধী নেত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎপ্রার্থী প্রতিনিধি দলে কিছু পরিবর্তন আসতে পারে।

একটি নির্ভরযোগ্য সূত্র বিষয়টি নিশ্চিত করেছে। সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, মঙ্গলবার সন্ধ্যায় রাষ্ট্রপতির সঙ্গে ৬ নাগরিকের বৈঠকটি অত্যন্ত আন্তরিক পরিবেশে অনুষ্ঠিত হয়। চলমান রাজনৈতিক সঙ্কট নিরসনে রাষ্ট্রপতি নৈতিক উদ্যোগ নেবেন বলে প্রতিনিধি দলকে আশ্বস্ত করেন। এ সময় নির্বাচনকালীন সরকারের প্রধান বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীর ছাড় দেয়া প্রয়োজন বলেও নাগরিকরা মত প্রকাশ করেন। তারা রাষ্ট্রপতিকে এও জানান, সরকারপ্রধান প্রশ্নে সরকার ছাড় দিলে প্রধান বিরোধী দলের নির্বাচনে অংশ নেয়ার বিষয়টি নিশ্চিত হবে। বিএনপির শীর্ষ নেতারা নির্বাচনে আগ্রহী হওয়ায় খালেদা জিয়ার পক্ষে নির্বাচনের বাইরে থাকা সম্ভব হবে না। এদিকে, রাষ্ট্রপতির সঙ্গে বৈঠকের পর মঙ্গলবার রাতেই ড. কামাল হোসেনের মিন্টু রোডের বাসায় একটি গোপন বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। এ বৈঠকে একটি প্রভাবশালী বাংলা দৈনিকের সম্পাদকসহ সুশীল সমাজের প্রায় ২৫ জন অংশ নেন। উল্লেখ্য, মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বে ড. জামিলুর রেজা চৌধুরী, ড. আকবর আলি খান, অ্যাডভোকেট সুলতানা কামাল, ড. বদিউল আলম মজুমদার ও ড. শাহদীন মালিক রাষ্ট্রপতির সঙ্গে প্রায় দেড় ঘণ্টা বৈঠক করেন। বৈঠকের পর বঙ্গভবন থেকে বেরিয়ে ড. আকবর আলি খান সাংবাদিকদের বলেন, আমরা আমাদের উদ্বেগের কথা রাষ্ট্রপতিকে জানিয়েছি। তার সীমাবদ্ধতা রয়েছে। তারপরও সঙ্কট নিরসনে রাষ্ট্রপতি চেষ্টা করছেন বলে আমাদের জানিয়েছেন। রাষ্ট্রপতি জানান, সাংবিধানিক কারণে তিনি আনুষ্ঠানিকভাবে কিছু করতে পারবেন না। যা করার অনানুষ্ঠানিকভাবে করবেন।

শেয়ার করুন