রংপুর মেয়রের চিকিৎসায় অবহেলার অভিযোগ তদন্তে কমিটি

0
88
Print Friendly, PDF & Email

ঢাকার অ্যাপোলো হাসপাতালের বিরুদ্ধে রংপুর সিটি করপোরেশনের মেয়র সরফুদ্দীন আহমেদের পাঁচ কোটি টাকার ক্ষতিপূরণ মামলার পর এবার অভিযোগ তদন্তে কমিটি গঠন করেছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর।
স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক (প্রশাসন) মো. শাহনেওয়াজ স্বাক্ষরিত একটি পত্র গত শনিবার রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক বরাবর পাঠানো হয়। পত্রে হাসপাতালের অর্থোপেডিকস বিভাগের সহকারী অধ্যাপক এ কে এম আবদুর রউফকে প্রধান করে দুই সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করার নির্দেশ দেওয়া হয়। কমিটির অন্য সদস্য হলেন একই বিভাগের রেজিস্ট্রার মো. ইউনুছ।
তদন্ত কমিটির প্রধান এ কে এম আবদুর রউফ গতকাল প্রথম আলোকে বলেন, ‘পত্র পাওয়ার ১০ দিনের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করার কথা বলা হয়েছে। আশা করছি, এর মধ্যে প্রতিবেদন দাখিল করা সম্ভব হবে।’
গত ২৮ জুলাই সিটি করপোরেশনের পাজেরো গাড়িতে করে ঢাকায় যাওয়ার পথে সিরাজগঞ্জের কামারখন্দ উপজেলার সীমান্ত বাজার এলাকায় আহত হন মেয়র সরফুদ্দীন। প্রথমে তাঁকে সিরাজগঞ্জের একটি বেসরকারি হাসপাতালে ও পরদিন ঢাকার অ্যাপোলো হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।
মেয়র জানান, অ্যাপোলো হাসপাতালে ১৯ দিন চিকিৎসা বাবদ তিনি ১৪ লাখ ৫৪ হাজার টাকা বিল পরিশোধ করেন। এরপর তিনি সুস্থ হয়েছেন বলে হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র দেওয়া হয়। হাসপাতাল থেকে রংপুরে নিজ বাড়িতে এসে তিনি বিশ্রামে ছিলেন। কিন্তু কয়েক দিন পর থেকে ডান হাতে ব্যথা অনুভব করেন। পরে রংপুর শহরের একটি বেসরকারি হাসপাতালে এক্স-রে করে দেখেন, তাঁর ডান হাতটি তখনো ভাঙা। গত ২৭ সেপ্টেম্বর ওই হাসপাতালে অস্ত্রোপচারের পর তিনি সুস্থ হন।
মেয়র সরফুদ্দীন ভুল চিকিৎসায় ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন দাবি করে তাঁর আইনজীবী ১ অক্টোবর রংপুরের আদালতের মাধ্যমে অ্যাপোলো হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে নোটিশ পাঠান। নোটিশের অনুলিপি স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সচিবের কাছেও পাঠানো হয়। নোটিশের জবাব না পাওয়ায় অ্যাপোলো হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে পাঁচ কোটি টাকার ক্ষতিপূরণ চেয়ে ৬ নভেম্বর রংপুরের আদালতে মামলা করেন মেয়র।

শেয়ার করুন