সহিংসতা ছড়িয়েছে গ্রামেও

0
53
Print Friendly, PDF & Email

হরতালে সহিংসতা ছড়িয়ে পড়েছে সারা দেশে। রাজধানীতে গতকাল ঢিলেঢালাভাবে হরতাল পালিত হলেও জেলা-উপজেলা ও ইউনিয়ন পর্যায়ে বিচ্ছিন্ন সংঘর্ষের খবর পাওয়া গেছে। এযাবৎকালের অন্য সব হরতালের চেয়ে গতকাল বেশি যানবাহন চলাচল করেছে রাজধানীতে। তবে আতঙ্ক ছিল কম-বেশি সারা দেশের সবখানে। হরতালের প্রথম দিনে চট্টগ্রামে ১ অটোরিকশা যাত্রী ও ফেনীর দাগনভূঁইঞায় এক প্রবাসী নিহত হয়েছেন। এছাড়া বগুড়ায় দৈনিক করতোয়ার অফিস ও বাংলাদেশ ব্যাংক চত্বরে ককটেল হামলা হয়েছে। ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ১৫ জন গুলিবিদ্ধসহ অর্ধশত আহত হয়েছেন। চাঁদপুরের মতলব দক্ষিণে পিকেটিংয়ের অভিযোগে যুবদলের চার কর্মীকে এক সপ্তাহের জেল দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। কুমিল্লার দেবিদ্বারে পুলিশের গাড়িতে হামলায় দুই পুলিশ, কিশোরগঞ্জে ত্রিমুখী সংঘর্ষে ৫০ জন আহত হয়েছেন। ঝিনাইদহে তিনজনকে এক মাস করে কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। মোটের ওপর সারা দেশে গুলিবিদ্ধসহ আহত হয়েছে সাত শতাধিক ব্যক্তি। গ্রেফতার করা হয়েছে পাঁচশরও বেশি। নিজস্ব প্রতিবেদক ও জেলা প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর- চট্টগ্রাম : চট্টগ্রাম মহানগর ও জেলার বিভিন্ন স্থানে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষ, ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ায় একজনের মৃত্যু ও ৮ পুলিশসহ অর্ধশতাধিক আহত হয়েছে। আটক হয়েছে ১৮-দলীয় জোটের ১৮ নেতা-কর্মী। সকালে হাটহাজারী উপজেলার মদুনাঘাট এলাকায় অটোরিকশা উল্টে নির্মল দাশ (৪৫) নামে এক যাত্রী নিহত হয়েছেন। অটোরিকশাটি মদুনাঘাট এলাকায় পৌঁছলে সেটি লক্ষ্য করে পিকেটাররা ইটপাটকেল নিক্ষেপ করতে থাকে। এ সময় অটোরিকশাটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে উল্টে যায়। সকালে নগরীর এ কে খান মোড়ে রেললাইনে আগুন দেওয়ার পর পুলিশ ও হরতাল সমর্থকদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। পুলিশের রাবার বুলেটে বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন। সকাল ৮টার দিকে নগরীর কর্নেলহাটে পুলিশ ফাঁকা গুলি ও রাবার বুলেট ছুড়লে অন্তত ৩০ জন আহত হন। রাঙ্গুনিয়া উপজেলার শিলকে বোমা তৈরির আস্তানায় বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ৬টি তাজা হাতবোমা ও ১২টি খোসা উদ্ধার করেছে। মিরসরাই উপজেলার হাদি ফকিরহাট এলাকায় ট্রাকে আগুন দিয়েছে হরতাল সমর্থকরা। ফেনী : ফেনীর দাগনভূঁইঞায় পিকেটারদের ধাওয়ায় পালাতে গিয়ে অ্যাম্বুলেন্স দুর্ঘটনায় এক প্রবাসী নিহত হয়েছেন। তার নাম মো. ইলিয়াস (৬০)। তিনি কোম্পানীগঞ্জের মেহেরুন্নেসা এলাকার বাসিন্দা। তিনি সম্প্রতি দুবাই থেকে দেশে এসেছিলেন। আওয়ামী লীগ ও বিএনপির মধ্যকার সংঘর্ষে আহত হয়েছেন সাতজন। এর মধ্যে দুজনকে কুপিয়ে জখম করা হয়েছে। ট্রাংক রোডে যুবদল, ছাত্রদলের সঙ্গে যুবলীগ ও ছাত্রলীগের ব্যাপক সংঘর্ষ হয়। এ সময় প্রায় ২৫টি ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। যুবলীগ কর্মীরা ছাত্রদলের দুই কর্মীকে কুপিয়ে গুরুতর আহত করেছে বলে দাবি করা হয়েছে। ব্রাহ্মণবাড়িয়া : হরতালকারীদের সঙ্গে পুলিশ ও র্যাবের দফায় দফায় সংঘর্ষ হয়েছে। শহরের সাতটি স্থানে সংঘর্ষের সময় জেলা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক ইয়াছিন মাহমুদসহ অন্তত ১৫ জন গুলিবিদ্ধসহ অর্ধশত নেতা-কর্মী আহত হন। এতে বেশ কয়েকজন পুলিশ সদস্যও আহত হন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ ৩০০ রাউন্ড রাবার বুলেট ও টিয়ার শেল নিক্ষেপ করে। জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক জহিরুল হককে ডিবি পুলিশ গ্রেফতার করেছে। পাওয়ার হাউস রোডে গাছ ও ইট ফেলে অবরোধ সৃষ্টি করে পিকেটাররা। সকাল সাড়ে ১০টায় শহরের পাইকপাড়া, টেংকের পাড়, কলেজ রোড, জেল রোড, বিরাসার মোড়ে টায়ার জ্বালিয়ে সড়ক অবরোধের সৃষ্টি করে। অবরোধকারীদের সরাতে গেলে পুলিশের সঙ্গে হরতালকারীদের সংঘর্ষ হয়। এ সময় পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে এলাকা রণক্ষেত্রে পরিণত হয়। শতাধিক হাতবোমার বিস্ফোরণ ঘটানো হয়। দুপুরে গণপূর্ত অধিদফতরের কাশবনে আগুন ধরিয়ে দেয় পিকেটাররা। জেলায় মোট ছয়জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বগুড়া : দৈনিক করতোয়া অফিস লক্ষ্য করে সন্ধ্যায় ককটেল নিক্ষেপ করা হয়েছে। দুটি ককটেল নিক্ষেপ করা হলেও এর একটি বিস্ফোরিত হয়। এতে হতাহতের ঘটনা ঘটেনি। এ ঘটনার নিন্দা জানিয়ে জড়িতদের গ্রেফতার দাবি করেছে বিভিন্ন সাংবাদিক সংগঠন। অন্যদিকে শহরে বেলা সাড়ে ১১টায় বাংলাদেশ ব্যাংক, বগুড়ার মূল ভবনের ফটকের সামনে দুটি ককটেলের বিস্ফোরণ ঘটায় হরতাল সমর্থকরা। মাটিডালি মোড়ে ট্রাকের গ্লাস ভাঙচুরসহ বিভিন্ন স্থানে ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। এক শিবির কর্মীকে আটক করেছে পুলিশ। ১৮-দলীয় জোটের ৩০০ নেতা-কর্মীকে আসামি করে মামলা করেছে পুলিশ। এ ছাড়া শহরের বনানী, সাবগ্রাম, ছিলিমপুরে সড়ক অবরোধ ও ককটেল বিস্ফোরণের খবর পাওয়া গেছে। খুলনা : সকালে পাওয়ার হাউস মোড়ে মীনাবাজারের সামনে পিকেটাররা দুটি ট্রাক ও জিন্নাপাড়ায় তিনটি ইজিবাইক ভাঙচুর করে। আমতলা মোড়ে পিকেটাররা একটি ইজিবাইক ভাঙচুর করে। শান্তিধাম মোড়ে সংবাদপত্রবাহী একটি পিকআপ ভাঙচুর করে তারা। সিএমএম আদালতের সামনে ককটেলের বিস্ফোরণ ঘটায়। রাজশাহী : সকালে নগরীর মালোপাড়ায় ছাত্রদল-পুলিশ ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষ বাধে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ অর্ধশত রাউন্ড বাবার বুলেট ও টিয়ার শেল ছোড়ে। এ সময় রাবার বুলেটের আঘাতে সাত ছাত্রদল কর্মী আহত হন। হরতালে সকালে নগরীর ছড়খড়ি বাইপাস, কাঁটাখালী, ভদ্রাসহ বিভিন্ন স্থানে টায়ারে অগ্নিসংযোগ করে রাস্তা অবরোধের চেষ্টা করে হরতাল সমর্থকরা। কিশোরগঞ্জ : আওয়ামী লীগ ও বিএনপি নেতা-কর্মীদের সংঘর্ষে রণক্ষেত্রে পরিণত হয় ফুলেরঘাট বাজার। এ সময় লাঠিচার্জ, রাবার বুলেট ও কাঁদুনে গ্যাস ছোড়ে পুলিশ। সংঘর্ষে পুলিশের একজন কনস্টেবল ও স্থানীয় একটি পত্রিকার সাংবাদিকসহ অর্ধশতাধিক আহত হয়েছেন। এদিকে শহরের একরামপুর এলাকায় ৮-১০টি অটোরিকশা ভাঙচুর করেছে পিকেটাররা। জামালপুর : সরিষাবাড়ীতে আওয়ামী লীগ-বিএনপি সংঘর্ষ, ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও গুলিবিনিময়ের ঘটনায় পুলিশ এবং শিশুসহ ১২ জন গুলিবিদ্ধ হয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন ২০ জন। উপজেলার শিশুয়া বাঘমারা ব্রিজ এলাকায় পিকেটারদের বাধা দেয় আওয়ামী লীগ। এতে উভয় পক্ষে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া, ইটপাটকেল নিক্ষেপ ও শটগানের গুলি ছোড়ার ঘটনা ঘটে। প্রায় ঘণ্টাব্যাপী সংঘর্ষে একজন পুলিশ কনস্টেবলসহ গুলিবিদ্ধ হন ১২ জন। কুমিল্লা : চৌদ্দগ্রামে পুলিশ ও জামায়াত-শিবিরের মধ্যে সংঘর্ষে চৌদ্দগ্রাম থানার ওসিসহ ১০ জন আহত হয়েছেন। এ সময় জামায়াতের তিন কর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এদিকে জেলার দেবিদ্বার উপজেলার বিরাল্লায় টহলরত পুলিশের গাড়িতে পিকেটাররা ইট ছোড়ে। এতে দুই পুলিশ সদস্য আহত হন। লক্ষ্মীপুর : হরতাল সমর্থক ও পুলিশের মধ্যে সংঘর্ষে পাঁচ পুলিশসহ আহত হয়েছেন ২০ জন। মাদারীপুর : জেলা বিএনপির সভাপতির বাসায় হামলা ও চরমুগরিয়া এলাকায় বিএনপির আঞ্চলিক কার্যালয় ভাঙচুর এবং অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটেছে। পাবনা : বিএনপি চেয়ারপারসনের ব্যক্তিগত সহকারী ও শ্রমিক নেতা শামসুর রহমান শিমুল বিশ্বাসের মুক্তির দাবিতে মোটর ও ট্রাক শ্রমিক ফেডারেশন আয়োজিত এক প্রতিবাদ সভায় হামলা চালিয়েছে যুবলীগ ও ছাত্রলীগ কর্মীরা। তাদের হামলায় সভাটি পণ্ড হয়ে যায়। এ সময় ট্রাক শ্রমিক ফেডারেশন অফিস ভাঙচুর করা হয়। নাটোর : লালপুর উপজেলার শ্রীরামগাড়ী গ্রামে রেললাইনের স্লিপার উপড়ে ফেলা হয়। এতে উত্তরাঞ্চলের সঙ্গে রেল যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যায়। সাত ঘণ্টা পর বেলা ১টার দিকে ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক হয়। এদিকে মাদ্রাসা মোড় থেকে হরিশপুর বাইপাস মোড় এলাকায় পিকেটিং করে সকাল থেকে রাস্তা অবরোধ করে রাখে ১৮ দল।

শেয়ার করুন