অন্তর্বর্তী সরকারের বিকল্প প্রস্তাব খালেদার

0
81
Print Friendly, PDF & Email

বিরোধী দলীয় নেতা বেগম খালেদা জিয়া বলেছেন, ১৯৯৬ ও ২০০১ সালে নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টাদের মধ্য থেকে ৫ জন করে মোট ১০ জন এবং সমাজের সর্বশ্রদ্ধেয় একজন বিশিষ্ট নাগরিক অন্তবর্তীকালীন সরকারের প্রধান হবেন।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী তার ভাষণে যা বলেছেন তা জাতির আশা-আকাংখার প্রতিফলন ঘটেনি। নির্বাচনকালীন অন্তবর্তকালীন সরকার প্রধান কে হবেন তা স্পষ্ট করেননি ধরেননি। তিনি নিজের সুবিধা মতো প্রস্তাব তুলে ধরেছেন। আমি এখনো মনে করি আলোচনার মাধ্যমে সুরাহা হওয়া দরকার। এটা যত দ্রুত হয় ভাল।

সোমবার বিকালে রাজধানীর গুলশানের হোটেল ওয়েস্টিনে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. আর এ গণি, ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, লে. জে. (অব.) মাহবুবুর রহমান, বিগ্রেডিয়ার জেনারেল (অব.) আ স ম হান্নান শাহ, ড. আব্দুল মঈন খান, ব্যারিস্টার জমির উদ্দিন সরকার, এমকে আনোয়ার, ব্যারিস্টার রফিকুল ইসলাম মিয়া, মির্জা আব্বাস, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, সারোয়ারি রহমান, নজরুল ইসলাম খান, ১৮ দলীয় শীর্ষ নেতাদের মধ্যে জামায়াতে ইসলামীর নায়েবে আমির অধ্যাপক একেএম নাজির আহমেদ, এলডিপির চেয়ারম্যান কর্নেল (অব.) অলি আহমেদ, বিজেপি চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার আন্দালিব রহমান পার্থ, ইসলামী ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান আব্দুল লতিফ নেজামী, লেবার পার্টির চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান ইরান, বাংলাদেশ কল্যাণপার্টির চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল (অব.) সৈয়দ মুহাম্মদ ইব্রাহিম, এনডিপি চেয়ারম্যান খন্দকার গোলাম মর্তুজা, এনপিপি চেয়ারম্যান শেখ শওকত হোসেন নিলু, মহাসচিব ডা. ফরিদুজ্জামান ফরহাদ প্রমুখ উপস্থিত রয়েছেন।

শেয়ার করুন