ক্ষমা করে দিলাম: খালেদা

0
72
Print Friendly, PDF & Email

জাতির উদ্দেশ্যে দেয়া প্রধানমন্ত্রীর ভাষণে নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের ঘোষণা না থাকায় সবাই হতাশ হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিরোধীদলীয় নেতা খালেদা জিয়া।

প্রধানমন্ত্রীর সর্বদলীয় সরকারের প্রস্তাবের প্রতিক্রিয়া জানাতে সোমবার এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

বিকাল ৪টা ১০ এ গুলশানের হোটেল ওয়েস্টিনে এই সংবাদ সম্মেলন শুরু হয়।

খালেদা জিয়া বলেন, “জাতি আশা করেছিল প্রধানমন্ত্রীর ভাষণে নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকারে বিষয়ে সুস্পষ্ট বক্তব্য থাকবে। কিন্তু তা না থাকায় সবাই হতাশ হয়েছে।”

প্রধানমন্ত্রীর ভাষণে বিগত চার দলীয় জোট সরকারের সমালোচনার জবাব দেয়ার পাশাপাশি বিএনপি আবারো ক্ষমতায় গেলে কীভাবে দেশ চালাবে সে বিষয়েও বলেন খালেদা।

ভাষণ প্রসঙ্গে খালেদা জিয়া বলেন, “তিনি তার স্বভাবসুলভ ভঙ্গিতে অতীতে ফিরে গিয়ে আমাদের সরকার সম্পর্কে অসত্য কথা বলেছেন।”

জাতীয় ঐক্য এখন ‘বিপন্ন’ মন্তব্য করে খালেদা জিয়া বলেন, “এ অবস্থায় জাতীয় ঐক্য ফিরিয়ে আনা জরুরি হয়ে পড়েছে। গণতন্ত্রের জন্য ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।”

খালেদা জিয়া বলেন, “প্রধানমন্ত্রী অনেক কুৎসা রটনা করেছেন। আমি এর পাল্টা বক্তব্য দিতে চাই না। প্রধানমন্ত্রীর পরিবার, আত্মীয়-স্বজন সম্পর্কে বিস্তর তথ্য থাকা সত্ত্বেও আমি এ নিয়ে কিছু বলতে চাই না। আমি বিশ্বাস করি, সুরুচিবান মানুষ তা শুনতে চান না। আমাদের এই অপসংস্কৃতি থেকে বেরিয়ে আসতে হবে।”

চিন্তার বৈচিত্র্যকে স্বাগত জানিয়ে ভিন্নমতকে স্বাগত জানানোর ওপর গুরুত্ব দেন তিনি।

বাংলাদেশে রাজনৈতিক সংস্কৃতি বদোনোর সময় এসেছে মন্তব্য করে খালেদা জিয়া বলেন, “আজ আমি সেই পরিবর্তনের আহ্বান নিয়ে এসেছি।”

বিএনপি চেয়ারপার্সন বলেন, “অতীতে বা বর্তমানে যারা তার এবং তার পরিবার সম্পর্কে নানাভাবে ব্যক্তিগত আক্রমণ করেছেন, তাদের সবাইকে আমি ক্ষমা করে দিলাম।”

১৮ দলীয় জোটের শীর্ষ নেতৃবৃন্দ এবং বিএনপির জাতীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য ও শীর্ষ নেতারা সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত রয়েছেন।

শেয়ার করুন