পাইকারী থেকে খুচরায় কেজিতে বাড়ছে ৩০ টাকা !

0
46
Print Friendly, PDF & Email

পেঁয়াজের দাম নিয়ে চলছে হরিলুট। রাজধানীর পাইকারী বাজার থেকে খুচরা বাজারে যাওয়ার পরই ৫০ টাকার পেঁয়াজ হয়ে যাচ্ছে ৯০ টাকা। এ নিয়ে ক্রেতাদের মধ্যে ক্ষোভের যেন শেষ নেই। তাদের অভিযোগ মনিটরিং ব্যবস্থা কার্যকর না থাকার পকেট খালি হচ্ছে ক্রেতা সাধারণের। শুক্রবার রাজধানীর পাইকারী বাজার শ্যাম বাজার ও খুচরা বাজার ঘুরে এই চিত্র পাওয়া যায়। শ্যাম বাজারে ভারতীয় পেঁয়াজের দাম মানভেদে সর্বনিম্ন ৫০ টাকা হতে সর্বোচ্চ ৬৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এই পেঁয়াজ দুই/এক হাত ঘুরে রাজধানীর হাতিরপুল,পলাশী এবং কারওয়ান বাজারে খুচরা ৯০ টাকা থেকে ৯৫ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে।

শ্যাম বাজারের ব্যবসায়ী হাবিবুর রহমান এ প্রসঙ্গে ঢাকাটাইমসকে বলেন, পেঁয়াজের মানের উপর নির্ভর করে বিভিন্ন দামে পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে। কয়েকদিন ধরে  ভারতীয় পেঁয়াজ সর্বনিম্ন ৫০ টাকা হতে সর্বোচ্চ ৬৫ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে। দেশী পেঁয়াজ ৬৫ টাকা হতে ৬৬ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে।

খুচরা বাজারে পেঁয়াজের দাম বেশি হওয়ার কারণ জানতে চাইলে তিনি বলেন,‘আমাদের আমদানি করা পেঁয়াজ রাজধানীর বিভিন্ন বাজারে পাইকারদের কাছে যায়, সেখান হতে সেগুলো খুচরা বিক্রেতারা কিনে নিয়ে বিক্রি করে। এভাবে দুই/তিন হাত ঘুরতেই পেঁয়াজের দাম বেরে যায়।’

রাজধানীর বিভিন্ন খুচরা বাজারে ব্যবসায়ীদের সাথে কথা বলে জানা যায়, তারা আধিকাংশ ক্ষেত্রে কারওয়ান বাজার হতে ভারতীয় পেঁয়াজ ৭৮টাকা হতে ৮০ টাকা দরে  এবং দেশী পেঁয়াজ ৭০ টাকা হতে ৭২ টাকা দরে ক্রয় করছেন। খুচরা বাজারে ভারতীয় পেঁয়াজ ৯০ টাকা হতে ৯৫ টাকা এবং দেশী পেঁয়াজ ৭৫ টাকা দরে বিক্রি করছে।

হাতিরপুল বাজারের খুচরা ব্যবসায়ী মিন্টু মিয়া বলেন, আমি আজ (শুক্রবার) সকালে কারওয়ান বাজার থেকে ভারতীয় পেঁয়াজ ৭৯ টাকা দরে কিনেছি। এখন বাজারে ৮৫ টাকা থেকে শুরু করে ৯০ টাকা পর্যন্ত বিক্রি করছি।’
তার কাছে প্রতি কেজিতে বেশি লাভ করার কারণ জানতে চাইলে তিনি বলেন,আমাদের পরিবহন খরচ আছে,আর বাজারের সব কিছুর দাম বেশি।

কারওয়ান বাজার পরিদর্শন করে জানা গেছে, সেখানে পাইকারী বাজারে ভারতীয় পেঁয়াজ প্রতি কেজি ৭৮ টাকা হতে ৮০ টাকায় বিক্রি করছে। এবং দেশী পেঁয়াজ ৭০ টাকা হতে ৭২টাকা দরে বিক্রি করছে।

 শ্যামবাজার এবং কারওয়ান বাজারে পেঁয়াজের দামের পার্থক্যের কারণ জানতে চাইলে কারওয়ান বাজারের ব্যবসায়ী মোস্তফা বলেন, আমরা শুধু শ্যাম বাজার নয়, দেশের বিভিন্ন স্থানীয় বাজার হতে পেঁয়াজ কিনি। বাজারের আমদানি বেশি থাকলে দাম কম থাকে এবং আমদানি কম থাকলে  দাম বেশি থাকে।

 দাম বেশির ব্যপারে তিনি বলেন,মানের দিক দিয়ে বিভিন্ন রকমের পেঁয়াজ আছে, তাই দাম একটু কম-বেশি হয়। এছাড়া আমাদের আমদানি খরচ লেবার খরচসহ নানা কারণে দাম একটু বেশি রাখতে হয়।

শেয়ার করুন