আওরঙ্গের মৃত্যুর ঘটনা তদন্ত করবে বিএনপি

0
52
Print Friendly, PDF & Email

বিএনপি সড়ক দুঘর্টনায় সাবেক সংসদ সদস্য হেমায়েতুল্লাহ আওরঙ্গের মৃত্যুর ঘটনার তদন্ত করবে বলে জানিয়েছেন দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া।
বৃহস্পতিবার রাতে আওরঙ্গসহ দুর্ঘটনায় নিহত যুবদল ও স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতাদের পরিবারের সদস্যরা গুলশানে চেয়ারপারসনের কার্যালয়ে তার সঙ্গে দেখা করতে এলে একথা বলেন তিনি।

নিহত পরিবারের সদস্যদের সান্ত্বনা জানিয়ে খালেদা জিয়া বলেন, “এরকম দুঘর্টনা বেদনাদায়ক ও দুঃখজনক। কোনো দুর্ঘটনা ঘটলো তা সরকারের তদন্ত করা উচিৎ। আমরা দলীয়ভাবে এই দুর্ঘটনার তদন্ত করব।’’

দুঘর্টনায় নিহত অন্যান্যদের পরিবারের সদস্যদেরও সান্ত্বনা জানিয়েছেন তিনি।

তিনি জানান, নিহত পরিবারের সদস্যদের পাশে বিএনপি সব সময় থাকবে।

প্রয়াত সাংসদ হেমায়েতুল্লাহ আওরঙ্গের স্ত্রী তাহমিনা আওরঙ্গ, ছেলে আরমান ও মেয়ে ওয়াইজার খোঁজ-খবর নেন তিনি।

এসময়ে দলের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, সহ-সভাপতি কামাল ইবনে ইউসুফ, নির্বাহী কমিটির সদস্য ও জেলা সভাপতি জামাল শরীফ হীরু উপস্থিত ছিলেন।

গত ৩ আগস্ট মুন্সীগঞ্জের মেদেনীমগুলের খানবাড়ি এলাকায় এক দুর্ঘটনায় আওরঙ্গসহ ৬ জন নিহত হন।

বিএনপি নেতা আওরঙ্গ (৫৭) ঢাকা থেকে শরীয়তপুর যাচ্ছিলেন। পথে বিকাল পৌনে ৪টার দিকে একটি বাসের সঙ্গে তার জিপের মুখোমুখি সংঘর্ষ ঘটে।

নিহত অন্যরা হলেন- যুবদলের কেন্দ্রীয় সহ-সাধারণ সম্পাদক নুরুজ্জামান জামান, স্বেচ্ছাসেবক দলের কেন্দ্রীয় সহ-দপ্তর সম্পাদক মুন্সি জামাল উদ্দিন, যুবদল নেতা মো. ইয়াসিন, স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতা নুরুদ্দীন পেদা প্রমূখ।

আওরঙ্গ ১৯৯১ সালে আওয়ামী লীগের টিকিটে শরীয়তপুর-১ আসনে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। দলের মনোনয়ন না পেয়ে ২০০১ সালে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে বিজয়ী হন তিনি।

২০০৮ সালের নির্বাচনের আগে বিএনপিতে যোগ দিয়ে প্রার্থী হন আওরঙ্গ।

শেয়ার করুন