শেষ মুহূর্তে হলেও সংলাপ সমঝোতা হবে : মজীনা

0
44
Print Friendly, PDF & Email

মার্কিন রাষ্ট্রদূত ড্যান ডব্লিউ মজীনা আবারও দু’দলের মধ্যে সংলাপের আহ্বান জানিয়ে বলেছেন, আমি দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করি সংলাপ হবে এবং এর মধ্যে দিয়ে রাজনৈতিক নেতৃত্ব একটি সমঝোতায় পৌঁছবেন। শেষ মুহূর্তে হলেও সমাধান আসবে।
গতকাল ভূমিকম্পের মতো প্রাকৃতিক দুর্যোগ মেকাবিলায় বাংলাদেশ ও মার্কিন সেনাদের চতুর্থ যৌথ অনুশীলনের সমাপনী অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে মার্কিন রাষ্ট্রদূত এ মন্তব্য করেন। তিনি সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে বলেন, তিনদিন আগে কূটনীতিকদের ব্রিফিংয়ে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডায়ালগের কথাই বলেছেন। একটি অবাধ, সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচনের পন্থা খুঁজে বের করতে রাজনৈতিক দলগুলোকে সমঝোতায় পৌঁছাতে হবে। আর এ সমঝোতার জন্য জরুরি হচ্ছে গঠনমূলক আলোচনা। বড় দু’দলের নেতারা আলোচনায় আন্তরিক বলেও উল্লেখ করেন ড্যান মজীনা। হিউম্যান রাইট ওয়াচের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার অভিযোগ আনা সম্পর্কিত অপর এক প্রশ্নে রাষ্ট্রদূত বলেন, আমি সকালেই এ বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের গভীর উদ্বেগের কথা জানিয়েছি। প্রতিষ্ঠানটির বিশ্বজুড়ে খ্যাতি রয়েছে। মানবাধিকার সুরক্ষায় তার দীর্ঘ ঐতিহ্য ও ব্যাপক সুনাম রয়েছে। যে কোনো দুর্যোগ মোকাবিলায় বাংলাদেশের প্রস্তুতি ও সক্ষমতা বেড়েছে জানিয়ে ড্যান মজীনা বলেন, গত চারদিনের এমন একটি দুর্যোগ নিয়ে দু’দেশের সেনাবাহিনী পর্যায়ে আলোচনা ও অভিজ্ঞতা বিনিময় হয়েছে। এটি এমন একটি প্রাকৃতিক দুর্যোগ, যার সঙ্গে আবহাওয়ার কোনো সম্পর্ক নেই। ভূমিকম্প যখন-তখন ঘটতে পারে। এর ভয়াবহতাও অনুমানের বাইরে। রাষ্ট্রদূত বলেন, এ ধরনের দুর্যোগের জন্য আগাম প্রস্তুতি সব সময় রাখতে হয়। এটা ঘটতে পারে এক সপ্তাহ, এক মাস পর। এটা বিশ-চল্লিশ বছর পরেও হতে পারে। যখনই ঘটুক তার ক্ষয়ক্ষতি যেন কম হয় সেজন্য কিছু আগাম ব্যবস্থা নিতে হবে। সচেতনতা সৃষ্টির মধ্য দিয়ে চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা সবচেয়ে জরুরি বিষয় বলে উল্লেখ করেন তিনি। বাংলাদেশের দুর্যোগ ব্যবস্থাপনায় যুক্তরাষ্ট্র অংশীদার হতে পেরে খুশি বলেও মন্তব্য করেন রাষ্ট্রদূত। এর আগে বিকালে হোটেল লেক শোরে চতুর্থ যৌথ অনুশীলনের সমাপনী অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে প্রধান অতিথির বক্তৃতা করেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনামন্ত্রী। অনুষ্ঠানে সেনাবাহিনীর প্রিন্সিপাল স্টাফ অফিসার লে. জেনারেল আবু বেলাল মোহাম্মদ শফিউল হক ও ইউএস প্যাসিফিক কমান্ডের মোবিলাইজেশন এসিসট্যান্ট ড্যারেল এল মুর বিশেষ অতিথির বক্তৃতা করেন।

শেয়ার করুন