ওয়াশিংটনে রুদ্ধদ্বার বৈঠক করলেন ড. ইউনূস

0
76
Print Friendly, PDF & Email

ওয়াশিংটনে যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়া বিষয়ক সহকারী সেক্রেটারি রবার্ট ও ব্লেইক, অর্থনীতি ও বাণিজ্য বিষয়ক সহকারী সেক্রেটারি জোসে ফার্নান্দেজ ও রাজনীতি বিষয়ক আন্ডার সেক্রেটারি ওয়েন্ডি শ্যারম্যানের সঙ্গে রুদ্ধদ্বার বৈঠক করেছেন ড. মুহাম্মদ ইউনূস।

ওয়াশিংটন সময় মঙ্গলবার সকাল পৌনে ১০টা থেকে ১২টার মধ্যে পরপর এ বৈঠকগুলো অনুষ্ঠিত হয়। তবে বৈঠক সম্পর্কে সাংবাদিকদের কিছু জানানো হয়নি।

যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র দপ্তরের ওয়েবসাইটে দিনের কার্যসূচিতে ইউনূসের সঙ্গে তিনটি বৈঠকের ক্ষেত্রেই বলা হয়েছে ‘ক্লোজড প্রেস কভারেজ’।

তবে,  বৈঠকে বাংলাদেশের দারিদ্র্য বিমোচন ও সার্বিক অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা হয়েছে বলে বাংলামেইলকে জানিয়েছেন পররাষ্ট্র দপ্তরের মুখপাত্র নোয়েল ক্লে।

ক্লে বলেন, ‘ড. ইউনূসের অনুপস্থিতিতে বাংলাদেশে গ্রামীণ ব্যাংকের কার্যক্রম কীভাবে চলছে, তা জানতে চাওয়া হয়েছে।’

উল্লেখ্য, সম্প্রতি ইউনূস সেন্টারের এক বিবৃতি নিয়ে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ সরকারের কড়া হুঁশিয়ারির মধ্যে ওয়াশিংটনে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হলো। যুক্তরাষ্ট্রের ওই তিন কর্মকর্তা গত এক বছরে বাংলাদেশ সফর করেছেন।

আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর গ্রামীণ ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালকের (এমডি) পদ থেকে ড. মোহাম্মদ ইউনূসকে অব্যাহতি দেয়া হয়। এর বিরুদ্ধে আইনি লড়াই চালিয়ে হেরে যান ড. ইউনূস। পরে তিনি নিজ থেকে সরে যান।

জিএসপি সুবিধা স্থগিত প্রসঙ্গে সুনির্দিষ্ট কোনো আলোচনা হয়েছে কিনা জানতে চাইলে নোয়েল বলেন, ‘যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে বাংলাদেশি পণ্যের শুল্কমুক্ত সুবিধা পুনরায় ফেরত পাওয়ার বিষয় নিয়েও বৈঠকে আলোচনা হয়েছে।’

কারখানায় শ্রম পরিবেশ নিয়ে অসন্তোষ থেকে গত মাসে বাংলাদেশি পণ্যে জিএসপি সুবিধা বাতিল করে যুক্তরাষ্ট্র।

আওয়ামী লীগ নেতাদের অভিযোগ, এক্ষেত্রে ইউনূসের ভূমিকা ছিল। তবে এ অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছেন ড. মোহাম্মদ ইউনূস।

শেয়ার করুন