সোনাইমুড়ী পৌরসভায় মেয়র পদে বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী জয়ী

0
123
Print Friendly, PDF & Email

নোয়াখালীর সোনাইমুড়ী পৌরসভা নির্বাচনে বিএনপি-সমর্থিত প্রার্থী মোতাহের হোসেন টানা দ্বিতীয়বারের মতো মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি সোনাইমুড়ী পৌর বিএনপির সভাপতি।
গতকাল শনিবার অনুষ্ঠিত নির্বাচনে মোতাহের হোসেন পেয়েছেন চার হাজার ৫২১ ভোট। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ-সমর্থিত প্রার্থী মো. নুরুল হক পেয়েছেন তিন হাজার ৭৮৮ ভোট।
সন্ধ্যায় ভোট গণনা শেষে রিটার্নিং কর্মকর্তা ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) হাসিনা বেগম মোতাহের হোসেনকে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত ঘোষণা করেন।
রিটার্নিং কর্মকর্তা হাসিনা বেগম মেয়র পদে মোতাহের হোসেনকে বেসরকারিভাবে বিজয়ী ঘোষণার কথা নিশ্চিত করে প্রথম আলোকে বলেন, শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট গ্রহণ শেষ হয়েছে। এদিকে জাল ভোট দেওয়ার চেষ্টার অভিযোগে পাঁচজনকে সাজা দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। দুপুরে ২ নং ওয়ার্ডের শিমুলিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়কেন্দ্রে জাল ভোট দেওয়ার সময় তাছলিমা আক্তার ও ইয়াকুব আলী নামের দুজনকে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে সাত দিনের কারাদণ্ড দেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও কোম্পানীগঞ্জের ইউএনও মো. নুরুজ্জামান।
তা ছাড়া ৮ নং ওয়ার্ডের কাঁঠালি মোহামঞ্চদিয়া ইসলামিয়া আরাবিয়া মাদ্রাসাকেন্দ্রে দুলাল ও জসিম উদ্দিন নামের দুজনকে এক হাজার টাকা এবং রেহানা আক্তারকে ৫০০ টাকা জরিমানা, অনাদায়ে সাত দিনের কারাদণ্ড দেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।
অস্বাভাবিক ভোট গ্রহণের অভিযোগ এনে বেলা তিনটার দিকে ২ নং ওয়ার্ডের শিমুলিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়কেন্দ্রের ভোট বাতিলের আবেদন করেন তিন মেয়র পদপ্রার্থী মোতাহের হোসেন, আবু তাহের ও মাহফুজুর রহমান।
আবেদনে মোতাহের হোসেন জানান, বেলা একটার মধ্যে ৭৪ শতাংশ ভোট গ্রহণ করা হয়, যা অস্বাভাবিক।
এ প্রসঙ্গে প্রিসাইডিং কর্মকর্তা মোজাম্মেল হোসেন জানান, বৃষ্টিতে যাতে ভোটারদের দুর্ভোগ না হয়, সে জন্য প্রতিটি বুথে দুটি গোপন কক্ষ করা হয়, যাতে দ্রুত ভোটাররা ভোট দিয়ে বাড়ি ফিরতে পারেন। এ জন্যই দুপুরের মধ্যে এত ভোট পড়েছে।

শেয়ার করুন