তাড়াশে কাবিখা ও কর্মসংস্থান কর্মসূচীর কোন প্রকল্পেই সাইনবোর্ড নেই

0
86
Print Friendly, PDF & Email

কাজের বিনিময়ে খাদ্য (কাবিখা) ও অতিদরিদ্রদের কর্মসংস্থান কর্মসূচির কাজ শুর“র আগেই প্রকল্প এলাকায় সাইনবোর্ড টাংগানোর সরকারের নির্দেশনা থাকলেও সিরাজগঞ্জের তাড়াশে কোন প্রকল্পেই তা মানা হয়নি।
জানা গেছে, সরকারি উন্নয়ন কর্মকান্ডের প্রচার, তথ্য জানার অধিকার নিশ্চিত করতে এবং কাজের সচ্ছতার জন্য কাবিখা ও কর্মসংস্থান প্রকল্পে সাইনবোর্ড টাংগানোর জন্য সরকারি নির্দেশনা রয়েছে। এ নির্দেশনা যথাযথভাবে  মানতে প্রকল্প বা¯—বায়নের নীতিমালায় গুর“ত্ব দিয়ে বলা হয়েছে।
নীতিমালা অনুযায়ী, প্রতি প্রকল্প এলাকায় কাজ শুর“র আগেই সাইনবোর্ড টাংগিয়ে ওই প্রকল্পের আয়তন, বরাদ্দের পরিমাণ, কাজের বিবরণ ও শ্রমিকের মজুরির হারসহ ১০টি বিষয়ে তথ্য বি¯—ারিত ভাবে থাকার কথা।
সাইনবোর্ডে প্রকল্প কমিটির চেয়ারম্যানের নাম-ঠিকানা, জেলা প্রশাসকের ফোন ন¤^র ও প্রকল্প পরিচালকের ফোন ন¤^র থাকার নিয়ম রয়েছে।  যাতে জনগন কোন অভিযোগ সহজে কর্তৃপ¶কে জানােেত পারেন। এ ছাড়া কোন প্রকল্পে সঠিক সাইনবোর্ড প্রদর্শনে ব্যর্থতার কারণে ওই প্রকল্প বাতিল করে দেওয়ার কথাও নীতিমালায় রয়েছে।
চলতি অর্থ বছরে তাড়াশ উপজেলায় কাবিখা ও কর্মসংস্থান কর্মসূচীর আওতায় অনেকগুলো প্রকল্প হাতে নেওয়া হয়েছে সরকারি ভাবে। বেশ কয়েকটি প্রকল্প এলাকা ঘুরে কোনটিতেই সাইনবোর্ডের অ¯ি—ত্ব পাওয়া যায়নি। অথচ কাবিখা ও কর্মসংস্থান কর্মসূচীর প্রকল্প বা¯—য়নের কাজ শেষ পর্যায়ে রয়েছে।
এ বিষয়ে তাড়াশ উপজেলা সিপিবির সাধারণ সম্পাদক ইমান আলী বলেন, সাইনবোর্ড টাংগালে সঠিকভাবে কাজ না করলে প্রকল্প বা¯—বায়নকারীদের বিভিন্ন প্রশ্নের মুখে পড়তে হবে। এজন্যই হয়তো কেউ সাইনবোর্ড টাংগান না। এ কারণে প্রকল্প বা¯—বায়নে অনেক অনিয়ম হচ্ছে।
এ প্রসঙ্গে নাম প্রকাশ না করার শর্তে একাধিক জনপ্রতিনিধি বলেন, বিভিন্ন ঝামেলার কারণেই সাইনবোর্ড টাংগানো হয়না।
এ ব্যাপারে তাড়াশ উপজেলা প্রকল্প বা¯—বায়ন কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) গোলাম রব্বানি বলেন, বরাদ্দ না থাকায় সাইনবোর্ড টাংগানো সম্ভব হচ্ছে না।

শেয়ার করুন