জিয়ার মরনোত্তর বিচার ও সংশ্লিষ্ট আইন করার দাবি ইনুর

0
110
Print Friendly, PDF & Email

১৯৭৫ সালের ৭ নভেম্বরের সিপাহী-জনতার অভূত্থানের মহানায়ক কর্ণেল আবু তাহেরকে হত্যার অপরাধে জেনারেল জিয়ার মরনোত্তর বিচার ও বিচারের জন্য সংশ্লিষ্ট আইন করার দাবি জানিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী ও জাসদ সভাপতি হাসানুল হক ইনু।
বুধবার বিকেলে বঙ্গবন্ধু এভিনিউর জাসদ কার্যালয়ে কর্ণেল তাহের মিলনায়তনে তাহের প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পন অনুষ্ঠানে তিনি এ মন্তব্য করেন।
হাসানুল হক ইনু বলেন, কর্ণেল তহেরের হত্যাকারীরা বাংলাদেশে যে নামেই রাজনীতি করুক তারা ইতিহাসের আস্থাকুড়ে নিক্ষিপ্ত হবে। তিনি বলেন, দেশপ্রেমিক কর্ণেল তাহেরকে ঠা-া মাথায় খুন করার পরিকল্পনাকারী জিয়া ও তার সহযোগীরা। তিনি আজ বেচেঁ নেই। কর্ণেল তাহেরকে সাজানো ও তথাকথিত মামলায় মৃত্যুদ- দিয়ে হত্যা করা হয়। তারপরও আদালত কর্ণেল তাহেরকে হত্যা করার দায়ে জেনারেল জিয়া ও তার সহযোগীদের অভিযুক্ত করেছে। কর্ণেল তাহের হত্যাকা- বাংলাদেশের রাজনৈতিক ইতিহাসে ঘৃণ্য।
আইনশাসন প্রতিষ্ঠার স্বার্থে জেনারেল জিয়াউর রহমানের মরনোত্তর বিচারের দাবি করে তথ্যমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশে মরনোত্তর বিচারের আইন নেই। তবে পৃথিবীর বহু দেশে মরণোত্তর বিচারের আইন রয়েছে। তাই আমি কর্ণেল তাহেরকে হত্যার অপরাধে জেনারেল জিয়ার মরনোত্তর বিচার ও বিচারের জন্য সংশ্লিষ্ট আইন করার দাবি জানাই।
অনুষ্ঠানের অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জাসদের সাধারণ সম্পাদক শরীফ নূরুল আম্বিয়া, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক নাজমুল হক প্রধান, জাসদের স্থায়ী কমিটির সদস্য শিরিন আখতার, জাহাঙ্গীর নগর বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ড. আনোয়ার হোসেন, কর্ণেল তাহেরের স্ত্রী লুৎফা তাহের প্রমুখ।

শেয়ার করুন