ভোরের এপিটাফ

0
121
Print Friendly, PDF & Email

ভোরের সমাধির পাশে শুয়ে আছিদেখি, আফিমের বাগানে গজিয়ে উঠছেস্মৃতিচিহ্নেরাবেঁচে থাকা, সেও এক বিভ্রান্তিঅথবা আঙুরলতার ফলভারনতশাখা! এসব আজ দুরূহ, কঠিন মনে হয়মনে হয় দূরের আকাশে ঠান্ডা বোমারু বিমানছাড়া কোনো সহজ সত্য নেইতবু ভোরের সমাধির পাশে শুয়ে আছিযেন সমাধি সমাধিনয়, গমখেতভাতের গরম মাড়এসব ঋণ ও লবণ হূদয় আজীবন পান করে গেছেঅথচ শরীরসেই অক্ষর মুছে মুছে আজ সাদা পাতা হয়ে আছে

২.
তালগুড় মুখে নিয়েপিঁপড়ে নয়, হেঁটে আসে মৃত্যুযেন মরে যাওয়া খুব ভালোযেন শোকসংগীতপৃথিবীর মহত্তম সৃষ্টিজীবনের সব রস জ্বাল দিলে এমন সুমিষ্ট হবে! সেই গাঢ়রস তবে তালগুড় হয়ে কাছে আসে? তবু কেন হূদয় আজও শিশুর আলিঙ্গন ভালোবাসে!

৩.
ভোরেরসমাধির পাশে শুয়ে আছিনিচে মাটি, আশা ও অস্থি, মানুষের গানওপরে চেয়েদেখি, আকাশ আকাশ নেইতারও হয়েছে কবরউড়ন্ত বল নেইশিশু নেইখেলার নিয়মেআজ ঘটেছে বদলসবচেয়ে সত্য এই মাটির করতল

 

(রুপশী বাংলা নিউজ) ২৬ এপ্রিল /২০১৩.

 

শেয়ার করুন