নওগাঁয় অসংখ্য বোরো বীজতলা নষ্ট

0
70
Print Friendly, PDF & Email

কৃষি ডেস্ক(ফেব্রুয়ারী):

 

তীব্র কুয়াশা আর শৈত্যপ্রবাহের কারণে নওগাঁয় অসংখ্য বোরো বীজতলা নষ্ট হয়ে গেছেএতে দেখা দিয়েছে বীজ সঙ্কটভরা মওসুমে চারা সঙ্কটে কৃষক বীজ রোপণ করতে পারছেন নাফলে কৃষকের মাঝে দেখা দিয়েছে হতাশাএক দিকে উপাদন খরচ বেশি তার ওপর চারা সঙ্কটে এবার জেলায় বোরো চাষের ল্যমাত্রা অর্জিত না হওয়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে

 

পৌষের মাঝামাঝি টানা ঘন কুয়াশায় নওগাঁয় রোপণ করা বীজতলা একদফা তির মুখে পড়েকৃষকের বিরাহীন প্রচেষ্টায় বীজতলাগুলো কিছুটা সামলে নিলেও মাঘের শেষ কদিনের টানা কুয়াশা আর শৈত্যপ্রবাহে বীজতলায় দেখা দেয় মড়কবীজতলাগুলো লালচে হয়ে পুড়ে নষ্ট হয়ে যায়এ দিকে বীজ সঙ্কটে ধান রোপণ করতে পারছেন না কৃষকএ কারণে অনেকে চাষ করেও বীজ রোপণ করতে না পেরে জমি ফেলে রেখেছেন

 

নষ্ট বীজতলা কোনো কাজে না আসায় গোখাদ্য হিসেবে ব্যবহার করছেন চাষিরা

 

অন্যান্য বছর পৌষের শেষ সপ্তাহে এ জেলায় পুরোদমে ধান রোপণে ব্যস্ত হয়ে পড়েন কৃষক; কিন্তু এবার চারা বীজ খুঁজতে বিভিন্ন জায়গায়  ছোটাছুটি করছেন তারাজেলার মহাদেবপুর উপজেলার উত্তর গ্রামের চাষি সাইদুর রহমান, মাহবুব আলম, আব্বাস আলী জানান, টাকা দিয়েও চারা মিলছে না হাটগুলোতেএক বিঘা জমি রোপণ করতে দুই হাজার ৫০০ থেকে তিন হাজার টাকার চারা বীজ কিনতে হচ্ছেএমনিতে ধানের দাম কম তার ওপর কয়েক দফা বেড়েছে ডিজেল ও বিদ্যুতের দামফলে এবার বোরো চাষে চাষিদের উসাহে ভাটা পড়েছে

 

চলতি মওসুমে জেলায় দুই লাখ ৯৬ হেক্টর জমিতে বোরো চাষের ল্যমাত্রা ধরা হয়েছেএমন অবস্থায় অনেক চাষি বোরো চাষ কমিয়ে ফেলার ফলে ল্যমাত্রা অর্জিত না হওয়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে

 

কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের উপপরিচালক এস এম নুরুজ্জামান মণ্ডল জানান, নষ্ট বীজ তলায় প্রয়োজনীয় তদারকি করে ভালো করার জন্য কৃষি বিভাগের লোকজন কাজ করছে

 

 

 

নিউজরুম

 

শেয়ার করুন