অবশেষে বহুল প্রতীক্ষিত পদ্মাসেতু দুর্নীতির সুপারিশসহ অনুসন্ধান প্রতিবেদন জমা দিয়েছে দুদক

0
109
Print Friendly, PDF & Email

রুপসীবাংলা, ঢাকা (০৪ ডিসেম্বর) অবশেষে বহুল প্রতীক্ষিত পদ্মাসেতুর পরামর্শক নিয়োগে দুর্নীতির অভিযোগে মামলার সুপারিশসহ অনুসন্ধান প্রতিবেদন জমা দিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশনের অনুসন্ধান টিম।

মঙ্গলবার দুপুর ১টায় দুদকের অনুসন্ধান টিম কমিশনের কাছে প্রতিবেদন জমা দেন।  এ তথ্য নিশ্চিত করেছে দুদকের নির্ভরযোগ্য সূত্র।
 
জানা গেছে, অনুসন্ধান টিমের প্রধান আবদুল্লাহ আল জাহিদের নেতৃত্বে দুদকের জ্যেষ্ঠ উপ-পরিচালক মীর মো. জয়নুল আবেদীন শিবলী, গোলাম শাহরিয়ার চৌধুরী ও উপ-পরিচালক মির্জা জাহিদুল আলম দুদক চেয়ারম্যান গোলাম রহমানের কাছে এ প্রতিবেদন জমা দেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন দুদকের কমিশনার মো: বদিউজ্জামান ও শাহাবউদ্দিন চুপপু।
 
এক বছরের বেশি সময় ধরে তদন্ত শেষে মঙ্গলবার দুপুরে তদন্ত রিপোর্ট কমিশনে পেশ করা হয়। রিপোর্টে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে প্রাপ্ত তথ্য পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে আসামিদের নাম চূড়ান্ত করবে কমিশন। কমিশনের অনুমতিক্রমে পরে থানায় মামলা করা হবে।
 
অনুসন্ধান সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, পদ্মাসেতু প্রকল্পে দুর্নীতির অভিযোগে একাধিক ভিআইপির বিরুদ্ধে মামলা হতে পারে। দুদকের তদন্তে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে মামলা করা হবে।
 
জানা গেছে, প্রতিবেদনে সাবেক যোগাযোগমন্ত্রী সৈয়দ আবুল হোসেন, সাবেক পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আবুল হাসান চৌধুরী, সেতু বিভাগের সাবেক সচিব মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়াসহ একাধিক ব্যক্তির বিরুদ্ধে মামলার সুপারিশ করা হয়েছে। কমিশন এখন যাচাই-বাছাই করে মামলার পথে এগোবে।
 
সূত্র জানায়, মামলা দায়েরের আগে প্রতিবেদনের আদ্যোপান্ত নিয়ে সফররত বিশ্বব্যাংকের বিশেষজ্ঞ প্যানেলের সঙ্গে মঙ্গলবার বিকেলে বা সন্ধ্যায় বসবে কমিশন। বৈঠকে বিশ্বব্যাংকের বিশেষজ্ঞ প্যানেলের লিডার আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের সাবেক প্রধান আইনজীবী লুই গ্যাব্রিয়েল মোরেনো ওকাম্পো, প্যানেলের অন্য দু`জন সদস্য হংকংয়ের দুর্নীতিবিরোধী স্বাধীন কমিশনের সাবেক প্রধান টিমোথি টং ও যুক্তরাজ্যের সিরিয়াস ফ্রড অফিসের সাবেক পরিচালক রিচার্ড অ্যাল্ডারম্যান, কান্ট্রি ডিরেক্টর অ্যালেন গোল্ডস্টেইন, দুদক চেয়ারম্যান গোলাম রহমান, কমিশনার মো. বদিউজ্জামান, মো. সাহাবুদ্দিন, দুদকের আইন উপদেষ্টা আনিসুল হকসহ দুদকের অনুসন্ধান টিমের সদস্যরা উপস্থিত থাকবেন।

এক বছরের বেশি সময় ধরে দুদকের তদন্তের তেমন অগ্রগতি না হওয়ায় স্বচ্ছ ও পরিপূর্ণ তদন্ত নিশ্চিত করতে দুদককে সহায়তা করতে ওই বিশেষজ্ঞ প্যানেল গঠন করে বিশ্বব্যাংক কর্তৃপক্ষ।

অবশেষে বহুল প্রতীক্ষিত পদ্মাসেতুর পরামর্শক নিয়োগে দুর্নীতির অভিযোগে মামলার সুপারিশসহ অনুসন্ধান প্রতিবেদন জমা দিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশনের অনুসন্ধান টিম।

মঙ্গলবার দুপুর ১টায় দুদকের অনুসন্ধান টিম কমিশনের কাছে প্রতিবেদন জমা দেন।  এ তথ্য নিশ্চিত করেছে দুদকের নির্ভরযোগ্য সূত্র।
 
জানা গেছে, অনুসন্ধান টিমের প্রধান আবদুল্লাহ আল জাহিদের নেতৃত্বে দুদকের জ্যেষ্ঠ উপ-পরিচালক মীর মো. জয়নুল আবেদীন শিবলী, গোলাম শাহরিয়ার চৌধুরী ও উপ-পরিচালক মির্জা জাহিদুল আলম দুদক চেয়ারম্যান গোলাম রহমানের কাছে এ প্রতিবেদন জমা দেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন দুদকের কমিশনার মো: বদিউজ্জামান ও শাহাবউদ্দিন চুপপু।
 
এক বছরের বেশি সময় ধরে তদন্ত শেষে মঙ্গলবার দুপুরে তদন্ত রিপোর্ট কমিশনে পেশ করা হয়। রিপোর্টে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে প্রাপ্ত তথ্য পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে আসামিদের নাম চূড়ান্ত করবে কমিশন। কমিশনের অনুমতিক্রমে পরে থানায় মামলা করা হবে।
 
অনুসন্ধান সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, পদ্মাসেতু প্রকল্পে দুর্নীতির অভিযোগে একাধিক ভিআইপির বিরুদ্ধে মামলা হতে পারে। দুদকের তদন্তে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে মামলা করা হবে।
 
জানা গেছে, প্রতিবেদনে সাবেক যোগাযোগমন্ত্রী সৈয়দ আবুল হোসেন, সাবেক পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আবুল হাসান চৌধুরী, সেতু বিভাগের সাবেক সচিব মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়াসহ একাধিক ব্যক্তির বিরুদ্ধে মামলার সুপারিশ করা হয়েছে। কমিশন এখন যাচাই-বাছাই করে মামলার পথে এগোবে।
 
সূত্র জানায়, মামলা দায়েরের আগে প্রতিবেদনের আদ্যোপান্ত নিয়ে সফররত বিশ্বব্যাংকের বিশেষজ্ঞ প্যানেলের সঙ্গে মঙ্গলবার বিকেলে বা সন্ধ্যায় বসবে কমিশন। বৈঠকে বিশ্বব্যাংকের বিশেষজ্ঞ প্যানেলের লিডার আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের সাবেক প্রধান আইনজীবী লুই গ্যাব্রিয়েল মোরেনো ওকাম্পো, প্যানেলের অন্য দু`জন সদস্য হংকংয়ের দুর্নীতিবিরোধী স্বাধীন কমিশনের সাবেক প্রধান টিমোথি টং ও যুক্তরাজ্যের সিরিয়াস ফ্রড অফিসের সাবেক পরিচালক রিচার্ড অ্যাল্ডারম্যান, কান্ট্রি ডিরেক্টর অ্যালেন গোল্ডস্টেইন, দুদক চেয়ারম্যান গোলাম রহমান, কমিশনার মো. বদিউজ্জামান, মো. সাহাবুদ্দিন, দুদকের আইন উপদেষ্টা আনিসুল হকসহ দুদকের অনুসন্ধান টিমের সদস্যরা উপস্থিত থাকবেন।

এক বছরের বেশি সময় ধরে দুদকের তদন্তের তেমন অগ্রগতি না হওয়ায় স্বচ্ছ ও পরিপূর্ণ তদন্ত নিশ্চিত করতে দুদককে সহায়তা করতে ওই বিশেষজ্ঞ প্যানেল গঠন করে বিশ্বব্যাংক কর্তৃপক্ষ।

নিউজরুম
 

শেয়ার করুন