৩২৯ ডলারে ‘মিনি’আইপ্যাড

0
183
Print Friendly, PDF & Email

রুপসীবাংলা, অর্থনীতি ডেস্ক :
গুজবকে মিথ্যা প্রমাণ করে অ্যাপল নিয়ে এল আইপ্যাড মিনি। তবে তা নতুন ‘আইপ্যাড মিনি’ নিয়ে। এ গুজবে একেবারেই মুখ খুলতে নারাজ ছিল অ্যাপল। তবে বিশ্লেষকদের কাছে আইপ্যাড মিনি নিয়ে নিয়ে যথেষ্ট তথ্য-উপাত্ত আগে থেকেই চলে আসে। সংবাদমাধ্যম সূত্র এ তথ্য জানিয়েছে। অ্যাপল প্রধান নির্বাহী টিম কুক জানালেন, অ্যাপল কথা রেখেছে। এ বছরের শুরুতেই বেশি কিছু উদ্ভাবনী চমকের কথা আশ্বাস দিয়েছিল অ্যাপল। এখন তা রক্ষা করা হচ্ছে। ভবিষ্যতেও এ ধারা অব্যাহত থাকবে।
অতীতের প্রসঙ্গ টেনে টিম কুক বলেন, গত আড়াই বছরে বিশ্বব্যাপী ১০ কোটি আইপ্যাড বিক্রি হয়েছে। আকার, ওজন, সুবিধা, ফিচার আর কোটি কোটি অ্যাপের বৈচিত্র্যগুণে আইপ্যাড মিনি বাজারে নতুন উন্মাদনা ছড়াবে। স্টিভও বৈচিত্র্যে বিশ্বাস করতেন। পাতলা আদলের (৭.২২ মিমি) এ পণ্য অ্যাপল ভক্তদের নিরাশ করবে না। সঙ্গে থাকছে অ্যাপল স্টোরের ৩ হাজার ৫০০ কোটি অ্যাপের হাতছানি। সব কিছু মিলিয়ে আইপ্যাড মিনি অনন্য আয়োজনে এক পণ্য। তবে তা আবারো ভোক্তাদের কাছেই প্রমাণের জন্য পৌঁছে যাচ্ছে।
বিশ্লেষকেরা বলছেন, আইফোন(৫) নিয়ে অ্যাপল এখনো ভালোভাবে বিপণনই শুরু করতে পারেনি। তবে অ্যাপলের একেবারে গোপন উন্নয়ন কক্ষে আইপ্যাড মিনি পরীক্ষামূলক পর্ব অতিক্রম করেছে। এমনকি লাখ লাখ আইপ্যাড মিনি প্রস্তুতও করা হয়েছে। এখন অপেক্ষা শুধু বিপণনের। এ জন্য অ্যামাজন কিনডল ফায়ার এবং গ্যালাক্সি নোট টুকে আমলে নিয়েছে অ্যাপল। বাজারে পরিস্থিতির পুরোটা চেহারা অনুমান করেই তবেই এবার মাঠে নামবে অ্যাপল মিনি।এমনকি প্রয়্যাত স্টিভ জবসের ঘোষণাতেও বহুবার অ্যাপল মিনির বর্ণনাগুণ সম্পর্কে তথ্য পাওয়া গেছে। এ মুহূর্তে ৭.৯ ইঞ্চি স্ক্রিনের অ্যাপল মিনি প্রস্তুত করা হয়েছে। এ পণ্যটি এ বছর আসবে কি না তা নিয়েও সংশয় ছিল।
স্টিভের হাত ধরে ৯.৭ ইঞ্চি স্পর্শক পর্দার আইপ্যাড পুরো বিশ্বের অর্থনৈতিক কর্মকান্ডের চেহারাই বদলে দেয়। এরই ধারাবাহিকতায় এবারে আইপ্যাড মিনি এল ৭.৯ ইঞ্চি পর্দায় অবয়বে। ওজন ০.৬৮ পাউন্ড। আইপ্যাড মিনির ন্যূনতম ১৬ জিবি সংস্করণের সঙ্গে ওয়াইফাইযুক্ত মডেলের দাম পড়বে ৩২৯ ডলার (৪০৩ সিঙ্গাপুর ডলার)। কিন্তু একই বৈশিষ্ট্যের সেল্যুলার সুবিধার মডেলের দাম ৪৫৯ ডলার। এদিকে ৬৪ জিবি সংস্করণে ওয়াইফাই এবং সেল্যুলার যুক্ত মডেলের দাম ৬৫৯ ডলার নির্ধারণ করা হয়েছে। এবারের আইপ্যাড মিনিতে থাকছে ফ্রন্স ফেস ক্যামের সুবিধা।
অ্যাপলের বিপণন প্রধান ফিল শিলার বলেন, আগামী ২৬ অক্টোবর থেকে মিনির অনলাইন প্রি-অর্ডার নেওয়া শুরু হবে। আর ২ নভেম্বর থেকে যুক্তরাষ্ট্র ছাড়াও এশিয়া এবং ইউরোপের ৩৬টি দেশে আইপ্যাড মিনি পাওয়া যাবে।

আগামী বড় দিনের উৎসবে এ অ্যাপল মিনি বাজারে আসতে পারে বলেও সংশ্লিষ্টরা ধারণা করেছিলেন। এদিকে চীনভিত্তিক ওয়েবসাইট নেটইজ সূত্র জানিয়েছে, অ্যাপল মিনির অবয়ব ৭.৯ ইঞ্চি স্ক্রিনের হতে পারে। এতে থাকছে উইন্ডোজ ৮ অপারেটিং সংস্করণ।
এ ছাড়াও যুক্তরাজ্যে অ্যামাজন কিনডল ফায়ার প্রকাশের দিনক্ষণকেও সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিচ্ছে অ্যাপল। প্রসঙ্গত, গত নভেম্বর বড়দিন উপলক্ষে ৩৯ লাখ কিনডল ফায়ার বিক্রি হয়। যেকেনো পণ্য এ সময় বিক্রির জন্য সুসময় বলে বাজার বিশ্লেষকেরা জানিয়েছেন।

আপলোড ২৫ অক্টোবর১২, নিউজরুম

শেয়ার করুন