একজন মারাঠি মেয়ের ভূমিকায় রানী

0
103
Print Friendly, PDF & Email

রূপসীবাংলা বিনোদন ডেস্ক :
বলিউডি অভিনেত্রী রানি মুখার্জি খুব আনন্দিত এই ভেবে যে ভারতজুড়ে সবাই তার বিয়ে নিয়ে ভাবছে। তিনি বলেছেন, ‘নিজেকে এখন ভারতের কন্যা মনে হয়। রানী বলেন,‘ নিজেকে খুবই ভাগ্যবতী মনে করি,কারণ পুরো জাতি আমার বিয়ে নিয়ে ভাবছে। তাহলে আমি হলাম জাতির কন্যা,কারণ তারা আমার বিয়ে নিয়ে খুবই সচেতন।’ মজার ব্যাপার হল, ৩৪ বছর বয়সী রানীর নতুন সিনেমা ‘আইয়া’র কাহিনী গড়ে উঠেছে বিয়েকে ঘিরেই। জাতীয় পুরষার প্রাপ্ত পরিচালক শচিন কুন্ডালকারের পরিচালিত এই সিনেমায় রানীকে দেখা যাবে একজন মারাঠি মেয়ের ভূমিকায়, যার বাবা-মা তাকে বিয়ে দিতে চান কিন্তুু তিনি প্রেমে পড়ে যান এক তামিল পেইন্টারের।
তাও পেইন্টারের প্রেমে তিনি পড়েন তার গায়ের গন্ধে আকৃষ্ট হয়ে! সিনেমাটির কাহিনী একটু ভিন্ন ধাঁচের হওয়ায় এটি দর্শকদের কেমন লাগবে তা নিয়ে কিছুটা সন্দিহান রানী। তবে তার বিশবাস সিনেমাটির সঙ্গে ভারতের কমবয়সী মেয়ে থেকে শুরু করে নানি-দাদি পর্যমত্ম সবাই বেশ একাত্মতা অনুভব করবেন। ক্যাটরিনা কাইফ, বিদ্যা বালান এবং চিত্রাঙ্গদার পর রানি এবার মারাঠিদের ঐতিহ্যবাহী ‘লাভানি’ নাচ নেচেছেন এই সিনেমায়। ‘আইয়া’ সিনেমায় রানি ছাড়াও দেখা যাবে দক্ষিণী তারকা পৃথ্বীরাজ সুকুমারানকে। সিনেমাটি মুক্তি পাবে অক্টোবরের ১২ তারিখে।
খবর ইন্দো-এশিয়ান নিউজ সাভিস।

শেয়ার করুন