রামুর সহিংসতায় জড়িতদের ছাড় দেয়া হবে না : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা৷৷

0
115
Print Friendly, PDF & Email

রূপসীবাংলা নিউজ ঢাকা ,০৬ অক্টোবর:
কঙ্বাজারের রামুসহ চট্টগ্রামের পটিয়ায় বৌদ্ধ স্থাপনায় হামলার সাথে জড়িতদের কাউকে ছাড় দেয়া হবে না বলে হুঁশিয়ারি উচারণ করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা৷ হামলার জন্য দুঃখ প্রকাশ করে তিনি বলেন, ‘জড়িতদের গ্রেপ্তার করা, ব্যবস্থা নেয়া- এটা আমরা করবই, ব্যবস্থা নেবই৷ যারা তা ঘটিয়েছে, তাদের ছাড় দেয়া হবে না৷’
শনিবার বাংলাদেশের বৌদ্ধ সমাজ সুরা কমিটির একটি প্রতিনিধিদল গণভবনে দেখা করতে গেলে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন৷ ওই ঘটনায় বিএনপি-জামায়াতকে দায়ী করে শেখ হাসিনা বলেন, হামলাকারীরা যে দলেরই হোক তাদের কাউকে ছাড় দেয়া হবে না৷ তাদের অবশ্যই বিচারের মুখোমুখি করা হবে৷ তিনি অভিযোগ করে বলেন, বাংলাদেশে রোহিঙ্গাদের অনুপ্রবেশ করতে না দেয়ায় পরিকলিতভাবে এই হামলা চালানো হয়েছে৷ হামলায় তিগ্রস্থ উপাসনালয় পুনর্নিমর্াণ করা হবে বলে প্রধানমন্ত্রী বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের প্রতিনিধি দলকে প্রতিশ্রুতি দেন৷ পাশাপাশি তিগ্রস্থদের সরকারিভাবে সহায়তার আশ্বাসও দেন তিনি৷ প্রধানমন্ত্রী বলেন, আগামী ঈদুল আজহা, দুগর্াপূজাসহ বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের ধমর্ীয় অনুষ্ঠানের আগে সব ধর্মের মানুষকে সতর্ক থাকতে হবে৷ কারণ তারা যে খেলা শুরু করেছে, তা তারা অনেক ভাবেই করবে৷ ইতিমধ্যে জড়িতদের সনাক্ত করতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে বলেও বৌদ্ধ সম্প্রদায়কে আশ্বসত্ম করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা৷ হামলা ঠেকাতে প্রশাসনের গাফিলতি ছিল কি না- তা তদনত্ম করে দেখা হচ্ছে৷ ফেইসবুকে কোরআন অবমাননার অভিযোগে গত ২৯ সেপেম্বর রাতে কঙ্বাজারের রামুতে বৌদ্ধ মন্দির ও ঘরবাড়িতে হামলা, অগি্নসযোগ ও ভাঙচুর করে৷ পরদিন চট্টগ্রামের পটিয়া এবং কঙ্বাজারের উখিয়া ও টেকনাফেও হামলার ঘটনা ঘটে৷ ওই ঘটনায় নিজেদের তদনত্মে পাওয়া তথ্য জানাতে শনিবার প্রধানমন্ত্রীর সাথে দেখা করেন শুদ্ধানন্দ মহাথেরোর নেতৃ ত্বধীন বৌদ্ধ সমাজ সুরা কমিটির প্রতিনিধিদলটি৷ হামলার পর কার্যকর পদপে নিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে সরনত্মাষ প্রকাশ করেন তারা৷
নিউজরুম

শেয়ার করুন